বিনোদন

হানিমুনে বড় বিপদ, মৃত্যুর মুখ থেকে ফিরলেন পাওলি-অর্জুন

‘মনের মানুষ’-এর সঙ্গে গাঁটছড়া বেঁধে সোজা পাড়ি দিয়েছিলেন বিদেশে৷ মধুচন্দ্রিমায় বেশ দিন কাটছিল পাওলি-অর্জুনের৷ সুইজারল্যান্ডের আনাচে-কানাচে ঘুরে বেড়াচ্ছিলেন৷ সে ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ারও করেছেন নায়িকা৷

তবে তাল একটু হলেও কাটল মাটারহর্নে৷ বরফের মাঝে হারিয়ে যেতে গিয়েই ঘটল বিপত্তি৷ সাক্ষাৎ মৃত্যুর মুখ থেকে ফিরলেন নবদম্পতি৷ জানা গিয়েছে, শৈল শহরে অতিরিক্ত তুষারপাতের ফলেই বিপদের মুখে পড়েন অর্জুন-পাওলি৷ যে রিসর্টে তাঁরা ছিলেন সেখানে প্রায় ঘরবন্দি হয়ে গিয়েছিলেন পর্যটকরা৷ চারপাশে রেকর্ড তুষারপাত হয়েছিল৷ এমনকী, ধস নামার মতো পরিস্থিতি তৈরি হয়েছিল৷

তবে কপাল জোরে রক্ষা পেয়ে গিয়েছেন পাওলি ও অর্জুন৷শোনা গিয়েছে, হেলিকপ্টারে করে তাঁদের উদ্ধার করে নিরাপদ স্থানে নিয়ে আসা হয়েছে৷ পাওলিদের মতোই অনেক পর্যটককে উদ্ধার করে আনা সম্ভব হয়েছে৷ তবে এখনও কিছু পর্যটক ওই স্থানে আটকে রয়েছেন৷ তাঁদেরও দ্রুত উদ্ধার করার চেষ্টা চলছে বলে জানা গিয়েছে৷

দিনক্ষণ আগে থেকেই ঠিক ছিল। পাত্র ঠিক হয়েছিল তারও আগে। গুয়াহাটির ব্যবসায়ী অর্জুন দেবের সঙ্গেই মনের বাঁধনে বাঁধা পড়েছিলেন পাওলি। অর্জুনের সঙ্গে অবশ্য কলকাতার যোগাযোগ ভালই। বালিগঞ্জে তাঁদের বাড়িও আছে। বিয়েটাও কলকাতাতে বেশ ভালভাবেই সম্পন্ন হয়। সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল তুলে ধরেছিল সে সব এক্সক্লুসিভ ছবি ও ভিডিও।

বিয়ের পরই গুয়াহাটি চলে গিয়েছিলেন পাওলি। সেখানেই হয়েছিল বউভাত। একপ্রস্থ রিসেপশনের পালা চলে সেখানে। নতুন পরিবারের সঙ্গে সময় কাটান নায়িকা। বড়দিন কেটেছে দুবাইয়ে। এরপরই শুরু হয় তাঁর মধুচন্দ্রিমার সফর। মাঝের এই ঘটনায় একটু তাল কাটলেও এখন সবই ঠিক রয়েছে বলে জানা গিয়েছে। হাজার হোক শেষ ভাল হলে সবই তো ভাল হয় তাই না!