জাতীয় বিভাগীয় সংবাদ

স্বামীকে বেঁধে রেখে স্ত্রীকে ধর্ষণ : ছাত্রলীগ নেতা গ্রেপ্তার

স্বামীকে আটকে রেখে স্ত্রীকে ধর্ষণ মামলার প্রধান আসামি বরিশালের বানারীপাড়া উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি মো. সুমন হোসেন মোল্লাকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

রোববার রাত সাড়ে ৮টার দিকে নগরীর কালীবাড়ি রোড থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। এরপর তাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য গোয়েন্দা পুলিশ কার্যালয়ে নেওয়া হয়।

বরিশালের বানারীপাড়ার বাসিন্দা ওই নারীর স্বামী জানান, তিনি চট্টগ্রামের পাহারতলী এলাকায় বসবাস করেন। ১০ মাস আগে তিনি দ্বিতীয় বিয়ে করেন। ১৫ দিন আগে চট্টগ্রাম থেকে দ্বিতীয় স্ত্রীকে নিয়ে বানারীপাড়ায় আসেন। কিন্তু প্রথম স্ত্রী দ্বিতীয় স্ত্রীকে মেনে না নেওয়ায় আত্মীয়স্বজনের বাড়িতে অবস্থান করতে থাকি।

গত শনিবার রাতে উপজেলার বেতাল গ্রামে নানা শামসুল হাওলাদারের বাড়িতে গিয়ে উঠি। খবর পেয়ে উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি সুমন দলবল নিয়ে আমার কাছে এক লাখ টাকা চাঁদা দাবি করেন। এ নিয়ে তর্ক-বিতর্কের এক পর্যায়ে সুমন আমাদের ওই গ্রামের বেতাল ক্লাবের একটি কক্ষে আটকে রাখেন। পরে আমার স্ত্রীকে এক বাড়িতে নিয়ে ধর্ষণ করে সুমন। এ সময় তার সঙ্গে আরো চারজন ছিল।

বানারীপাড়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সাজ্জাদ হোসেন জানান, এ ঘটনায় ওই নারীর স্বামী বাদী হয়ে সুমন ও মামুনসহ অজ্ঞাতদের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন। মামলার প্রধান আসামি সুমনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। অন্যদের গ্রেপ্তারে অভিযান চলছে।