আন্তর্জাতিক

সৌদি যুবরাজ ইরানকে উদ্দেশ করে যে ‘হুঙ্কার’ দিলেন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : ওমান উপসাগরে তেলবাহী দুইটি ট্যাংকারে হামলার ঘটনায় ইরান জড়িত বলে অভিযোগ করেছেন সৌদি যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমান। সেইসঙ্গে তিনি হুমকিস্বরূপ বলেন, তার দেশ কোন ধরনের হুমকি মোকাবিলায় দ্বিধা করবে না। খবর দ্য টাইমস অব ইসরায়েল।

শনিবার রাতে সংবাদ মাধ্যম আশরাক আল-আওসাত’কে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে এসব মন্তব্য করেন সৌদি যুবরাজ।

সাক্ষাৎকারে যুবরাজ সালমান বলেন, আমরা এই অঞ্চলে যুদ্ধ চাই না, কিন্তু আমাদের জনগণের ওপর, সার্বভৌমত্বের ও অঞ্চলের জন্য হুমকি স্বরূপ কিছু হলে সৌদি কোনও ছাড় দিবে না।

এছাড়া সৌদি যুবরাজ আরও বলেন, তেহরানে সফররত জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবের সফরের প্রতি সম্মান দেখায়নি ইরান।

এর আগে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ওমান উপসাগরে তেলবাহী দুইটি ট্যাংকারে রহস্যজনক হামলার ঘটনায় সম্পূর্ণভাবে ইরান দায়ী বলে মন্তব্য করেন।

ট্রাম্প ফক্স নিউজকে বলেন, ইরান এটা করেছে। আপনারা জানেন তারাই এটি করেছে কারণ আপনারা নৌযানটি দেখেছেন। আমি ধারণা করছি মাইনগুলোর একটি বিস্ফোরিত হয়নি। আর এটি তাদের সরিয়ে ফেলা জরুরি ছিল কারণে এতে ইরানের নাম থাকতে পারে। এতে প্রমাণিত হয় যে এ হামলার ঘটনায় তেহরান পরোপুরি জড়িত রয়েছে।

তিনি আরো বলেন, ‘আপনারা দেখেছেন নৌযানটি থেকে রাতে মাইনটি খুলে নেয়ার চেষ্টা করা হয়েছে এবং এ কাজে তারা সফলও হয়।’

জুমবাংলানিউজ/এএসএমওআই