বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি

সোফিয়াকে এক নজর দেখতে এসে টিকেট না পাওয়ায় ভাঙচুর

ডিজিটাল ওয়ার্ল্ডের এবারের আয়জনে অন্যতম আকর্ষণ ছিল রোবট মানবী সোফিয়া। সোফিয়াকে নিয়ে একটি বিশেষ সেশন ‘টক উইথ সোফিয়া’য় অংশ নিতে আগে থেকেই নিবন্ধন করেছিল দুই হাজার আগ্রহী দর্শনার্থী। তবে আয়োজন শুরুর ঘণ্টাখানেক আগে থেকেই সেশনটিতে অংশ নিতে ঢল নামে কয়েক হাজার মানুষের।

সোফিয়াকে দেখতে এসে ভাঙচুর
প্রধানমন্ত্রীর উদ্বোধনের পর দুপুর দেড়টায় সাধারণ দর্শনার্থীদের জন্য মেলা উন্মুক্ত হবে, এমনটি বলা হয় শুরুতেই। দেড়টা বাজতেই সাধারণ মানুশের হুড়োহুড়ি শুরু হয়। বিপুল সংখ্যক মানুষের প্রবেশের জন্য ছিল মাত্র চারটি প্রবেশদ্বার।

এরই মধ্যে এন্ট্রি কোড দিয়ে প্রবেশ পত্র সংগ্রহ করার জন্য লাইনে দাঁড়ায় হাজারো দর্শনার্থী। তবে কিছু সময় পর বিশৃঙ্খল অবস্থা দেখা যায় সেখানে। এর মধ্যেই শুরু হয় ভাঙচুর। দীর্ঘ সময় লাইনে দাঁড়িয়েও কার্ড না পাওয়ায় উত্তেজিত দর্শনার্থীরা নিবন্ধন বুথের কম্পিউটার ভাঙচুর করে। এছাড়া সম্মেলন কেন্দ্রের ভেতরে চলন্ত সিঁড়িও ভাংচুর করে তারা।

মেলায় আগত একজন দর্শনার্থী জানান, বুথের কাছে ধাক্কাধাক্কির মধ্যেই বিদ্যুতের তার শর্ট সার্কিট হয়ে সেখানে আগুন ধরে যায়। তবে দ্রুতই পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনা হয়।

সোফিয়ার জন্য উপচে পড়া ভিড়
এরপর নিবন্ধিত দর্শনার্থীদের পাশাপাশি অনিবন্ধিত দর্শনার্থীরাও ঢুকতে থাকে হল অব ফেমে যেখানে সোফিয়ার সেশনটি অনুষ্ঠিত হয়।

দীর্ঘ সময় ভিড়ের মধ্যে থেকেও অনেকেই প্রবেশ করতে না পাওয়ায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। মোহাম্মদপুর থেকে আগত রাজু নামে একজন দর্শনার্থী ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, ‘সোফিয়াকে নিয়ে যেরকম হুজুগ ছিল, তাতে আয়োজকদের আগে থেকেই বোঝা উচিত ছিল এখানে বিপুল সংখ্যক মানুষের আগমন ঘটবে। সেই হিসাবে যথাযথ ব্যবস্থাপনার অভাব লক্ষ্য করা গেছে। এত বড় একটি আয়োজনে এমন অব্যস্থাপনা সত্যিই দুঃখজনক।