অর্থনীতি-ব্যবসা জাতীয় শেয়ার বাজার

সাবমেরিন কেবলস : পাঁচ দিনে ১৮৩ কোটি টাকার লেনদেন

পুুঁজিবাজার ডেস্ক : ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) গত সপ্তাহে লেনদেনের ৪ দশমিক ৪৫ শতাংশ ছিল বাংলাদেশ সাবমেরিন কেবলস কোম্পানি লিমিটেডের (বিএসসিসিএল)। সপ্তাহজুড়ে এর মোট ১৮৩ কোটি ২৫ লাখ ৪৩ হাজার টাকার শেয়ার লেনদেন হয়।

ডিএসইতে বৃহস্পতিবার বিএসসিসিএল শেয়ারের সর্বশেষ দর ৯ দশমিক ৮৪ শতাংশ বা ১৩ টাকা ৮০ পয়সা বেড়ে দাঁড়ায় ১৫৪ টাকায়। দিনভর দর ১৪১ টাকা ৯০ পয়সা থেকে ১৫৪ টাকা ২০ পয়সার মধ্যে ওঠানামা করে। সমাপনী দর ছিল ১৫৪ টাকা ১০ পয়সা, যা এর আগের কার্যদিবসে ছিল ১৪০ টাকা ২০ পয়সা। এদিন ৪ হাজার ১৮২ বারে এ কোম্পানির মোট ১৯ লাখ ৯০ হাজার ৫৬৪টি শেয়ারের লেনদেন হয়।

এক বছরে শেয়ারটির সর্বনিম্ন দর ছিল ৭১ টাকা ৫০ পয়সা ও সর্বোচ্চ ১৭১ টাকা ৩০ পয়সা।

৩০ জুন সমাপ্ত ২০১৮ হিসাব বছরের জন্য ৫ শতাংশ নগদ পেয়েছেন সরকারি কোম্পানিটির শেয়ারহোল্ডাররা। বছর শেষে কোম্পানির শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৪৪ পয়সা এবং শেয়ারপ্রতি সম্পদ মূল্য (এনএভিপিএস) দাঁড়িয়েছে ৩৫ টাকা ৬৮ পয়সা।

এর আগে ২০১৭ সালের ৩০ জুন সমাপ্ত হিসাব বছরের জন্য ১২ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দিয়েছে কোম্পানিটি। নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন অনুসারে, সে বছর এর ইপিএস হয়েছে ১ টাকা ৯৩ পয়সা, আগের বছর যা ছিল ১ টাকা।

২০১২ সালে শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত কোম্পানিটির অনুমোদিত মূলধন ১ হাজার কোটি ও পরিশোধিত মূলধন ১৬৪ কোটি ৯০ লাখ ৬০ হাজার টাকা। কোম্পানির রিজার্ভ আছে ৩৫১ কোটি ২০ লাখ ২০ হাজার টাকা। মোট শেয়ারের মধ্যে বাংলাদেশ সরকারের কাছে ৭৩ দশমিক ৮৪ শতাংশ, প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারী ১৪ দশমিক ৯৬, বিদেশী বিনিয়োগকারী ৩ দশমিক শূন্য ৪ ও সাধারণ বিনিয়োগকারীদের হাতে রয়েছে বাকি ৮ দশমিক ১৬ শতাংশ শেয়ার।

সর্বশেষ নিরীক্ষিত ইপিএস ও বাজার দরের ভিত্তিতে শেয়ারটির মূল্য আয় অনুপাত বা পিই রেশিও ৩৫০ দশমিক ২৩। অনিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদনের ভিত্তিতে যা ৫৩ দশমিক ৮৮।

জুমবাংলানিউজ/পিএম