বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি লাইফ স্টাইল

সাতটি রোগ হতে পারে মোবাইল ফোনের কারণে

বর্তমান প্রযুক্তির এই যুগে মোবাইল ফোন ছাড়া একমুহূর্তের জন্য ভাবাই যায় না। মোবাইল নাম এই যন্ত্রটি সারাক্ষণ আমাদের সঙ্গী হয়ে রয়েছে।

হোক কাজের ক্ষেত্রে অথবা বিনোদনের ক্ষেত্রে। আমরা সারাক্ষণই এই যন্ত্রটিকে ব্যবহার করে চলেছি। প্রযুক্তি নির্ভর এই যুগের সঙ্গে তাল মিলিয়ে এটিকে আমাদের ব্যবহার করতেই হয়। যা কিনা আমাদের জন্য অপরিহার্য হয়ে উঠেছে। এছাড়া কোনো উপায় নেই।

মোবাইল থেকে নির্গত ক্ষতিকর বিকিরণে আমাদের শরীর নানা উপায়ে ক্ষতিগ্রস্ত হয়। যা আমরা সবাই জানি। মোবাইল ফোনের ক্ষতিকর বিকিরণ ক্যানসারের কারণ, সেটাও আমাদের অজানা নয়।

এছাড়াও মোবাইল ব্যবহার করলে আরো কি কি রোগ হতে পারে তা জেনে নিন

হার্টের সমস্যা: মোবাইল ফোন থেকে নির্গত ক্ষতিকর রশ্মি পাকাপাকিভাবে হার্টের সমস্যা তৈরি করে। ফলে বুক পকেটে কখনো মোবাইল ফোন রাখবেন না এবং হার্টের সমস্যা হচ্ছে বুঝলে অবহেলা করবেন না।

ক্যানসার: গবেষণায় দেখা গিয়েছে, মোবাইল ফোন থেকে নির্গত রেডিওফ্রিকোয়েন্সির ফলে ব্রেন টিউমার হওয়ার সম্ভাবনা অনেকখানি বেড়ে যায়। এর থেকে ক্যানসারও হতে পারে।

শ্রবণ দুর্বলতা: মোবাইল ফোনের অতিরিক্ত ব্যবহারের ফলে শ্রবণ শক্তি পুরোপুরি নষ্ট হতে পারে বলে জানিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। মোবাইলের তড়িৎচুম্বকীয় ক্ষেত্রের সঙ্গে দীর্ঘদিন ধরে অন্তরঙ্গতা কানে শোনার ক্ষমতা কমিয়ে দিতে পারে।

বন্ধ্যাত্ব: মোবাইল রশ্মি বিকিরণের এটি অন্যতম ক্ষতিকর দিক। মোবাইল ফোনের ব্যবহারে পুরুষের স্পার্ম কাউন্ট কমে যায়। ফলে সন্তানের জন্ম দিতে অসুবিধার সম্মুখীন হতে হয়।

ঘুমের ব্যাঘাত: কেন রাতের ঘুমের ব্যাঘাত ঘটছে বুঝতে পারছেন? মোবাইল নিয়ে সারাদিন ঘাঁটতে থাকাই এর প্রধান কারণ। মাত্রাতিরিক্ত মোবাইল ঘাঁটা, বিশেষ করে রাতে শুয়ে, ঘুমের ব্যাঘাত ঘটায়। এর ফলে শরীরে নানা ধরনের অসুখ বাসা বাধে।

চোখের সমস্যা: এখনকারদিনে আমরা অনেকেই সারাদিন কম্পিউটার অথবা মোবাইলে কাজ করি। বেশিক্ষণ মোবাইলের স্ক্রিনের দিকে তাকিয়ে থাকলে চোখের সমস্যা হতে বাধ্য। কম বয়সেই মোটা ফ্রেমের চশমা চোখে উঠতে পারে আপনার।

দুর্ঘটনার প্রবণতা বাড়ায়: মোবাইল ফোন ব্যবহার করতে করতে কাজ করলে দুর্ঘটনার সম্ভাবনা অনেকখানি বেড়ে যায়। গাড়ি চালানোর সময় অথবা রাস্তা পার হওয়ার সময় কখনো মোবাইল ফোন ব্যবহার করা উচিত নয়।