অর্থনীতি-ব্যবসা জাতীয়

সবচেয়ে বড় ব্যয়ের খাত জনপ্রশাসন, দেখে নিন কোন খাতে কত ব্যয় ধরা হয়েছে

জুমবাংলা ডেস্ক: ২০১৯-২০ অর্থবছরের জন্য ৫ লাখ ২৩ হাজার ১৯০ কোটি টাকার প্রস্তাবিত বাজেট উপস্থাপন করেছেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল।

বৃহস্পতিবার বিকালে স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর অনুমতি নিয়ে তিনি বাজেট উপস্থাপন  করেন। পরে তিনি অসুস্থ বোধ করায় বাজেটের অর্থমন্ত্রীর বাজেট ঘোষণার পরবর্তী অংশ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পাঠ করেছেন।

এবারের প্রস্তাবিত বাজেটে সবচেয়ে বড় ব্যয়ের খাত হিসেবে ধরা হয়েছে জনপ্রশাসন খাতকে। এ খাতে ২০১৯-২০ অর্থবছরে ব্যয় ধরা হয়েছে শতকরা ১৮ দশমিক ৫ শতাংশ বা প্রায় ৯৬ হাজার ৭৯০ কোটি টাকা। শিক্ষা ও প্রযুক্তি খাতে ব্যয় ধরা হয়েছে মোট বাজেটের শতকরা ১৫ দশমিক ২ শতাংশ বা প্রায় ৭৯ হাজার ৫২৫ কোটি টাকা। বিভিন্ন সুদের জন্য ব্যয় ধরা হয়েছে শতকরা ১০ দশমিক ৯ শতাংশ বা প্রায় ৫৭ হাজার ২৮ কোটি টাকা।

পরিবহন ও যোগাযোগ খাতে ব্যয় ধরা হয়েছে শতকরা ১২ দশমিক ৪ শতাংশ বা প্রায় ৬৪ হাজার ৮৭৫ হাজার কোটি টাকা। স্থানীয় সরকার ও পল্লী উন্নয়ন খাতে ব্যয় ধরা হয়েছে শতকরা ৭ দশমিক ২ শতাংশ বা প্রায় ৩৭ হাজার ৬৭০ কোটি টাকা। জ্বালানি ও বিদ্যুৎ খাতে ব্যয় ধরা হয়েছে শতকরা ৫ দশমিক ৪ শতাংশ বা প্রায় ২৮ হাজার ২৫২ কোটি টাকা। স্বাস্থ্য খাতে ব্যয় ধরা হয়েছে শতকরা ৪ দশমিক ৯ শতাংশ বা প্রায় ২৫ হাজার ৬৩৬ কোটি টাকা।

প্রতিরক্ষা খাতে ব্যয় ধরা হয়েছে শতকরা ৬ দশমিক ১ শতাংশ বা প্রায় ৩১ হাজার ৯১৪ কোটি টাকা। সামাজিক নিরাপত্তা ও কল্যাণ খাতে ব্যয় ধরা হয়েছে শতকরা ৫ দশমিক ৬ শতাংশ বা প্রায় ২৯ হাজার ২৯৮ কোটি টাকা। জনশৃংখলা ও নিরাপত্তা খাতে ব্যয় ধরা হয়েছে শতকরা ৫ দশমিক ৩ শতাংশ বা প্রায় ২৭ হাজার ৭২৯ কোটি টাকা।

গৃহায়ন খাতে ব্যয় ধরা হয়েছে শতকরা ১ দশমিক ৩ শতাংশ বা প্রায় ৬ হাজার ৮০১ কোটি টাকা। বিনোদন, সংস্কৃতি ও ধর্ম খাতে ব্যয় ধরা হয়েছে শতকরা দশমিক ৯ শতাংশ বা প্রায় ৪ হাজার ৭০৮ কোটি টাকা। শিল্প ও অর্থনৈতিক সার্ভিস খাতে ব্যয় ধরা হয়েছে শতকরা দশমিক ৭ শতাংশ বা প্রায় ৩ হাজার ৬৬২ কোটি টাকা।

এছাড়াও বিবিধ ব্যয়ের জন্য ধরা হয়েছে শতকরা দশমিক ২ শতাংশ বা এক হাজার ৪৬ কোটি টাকা।

জুমবাংলানিউজ/এইচএম