জাতীয়

সংরক্ষিত আসনে ৪ নারীর ৩ জনই আউট

একাদশ জাতীয় সংসদে সংরক্ষিত নারী আসনের মনোনয়ন নিয়ে জাতীয় পার্টির দু’রকম সিদ্ধান্ত দেখা গেছে। গত ৯ জানুয়ারি ৪ জনকে মনোনয়ন দেওয়া হলেও চূড়ান্ত তালিকায় ৩ জনকেই বাদ দেওয়া হয়েছে।

একমাস আগে মনোনয়ন পেয়েছিলেন- পারভীন ওসমান (নারায়ণগঞ্জ), শাহীনা আক্তার (কুড়িগ্রাম), নাজমা আকতার (ফেনী), মনিকা আলম (ঝিনাইদহ)। এর একমাস পর সোমবার (১১ ফেব্রুয়ারী) নতুন করে দেওয়া মনোনয়নে আগের ৩জনকেই বাদ দেওয়া হয়েছে।

চূড়ান্ত মনোনয়ন পাওয়া ৪ জন হলেন- প্রেসিডিয়াম সদস্য ও সাবেক প্রতিমন্ত্রী অ্যাডভোকেট সালমা ইসলাম, অধ্যাপিকা মাসুদা এম রশিদ চৌধুরী, চেয়ারম্যানের উপদেষ্টা অধ্যক্ষ রওশন আরা মান্নান ও নাজমা আকতার। একমাস আগে মনোনয়ন পাওয়াদের মধ্যে শুধুমাত্র নাজমা আকতারকে রাখা হয়েছে।

সোমবার জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের উপ-প্রেস সচিব খন্দকার দেলোয়ার জালালী এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান, জাতীয় সংসদের বিরোধী দলীয় নেতা ও সাবেক রাষ্ট্রপতি রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ তাদের মনোনয়ন চূড়ান্ত দিয়েছেন।

এ সময় জাতীয় পার্টির কো-চেয়ারম্যান ও জাতীয় সংসদের বিরোধী দলীয় উপনেতা জিএম কাদের এমপি, মহাসচিব মসিউর রহমান রাঙ্গা এমপি, প্রেসিডিয়াম সদস্য ফখরুল ইমাম এমপি, রেজাউল ইসলাম ভূঁইয়া, ভাইস চেয়ারম্যান শরিফুল ইসলাম জিন্না এমপি, ডা. রুস্তম আলী ফরাজী এমপি, যুগ্ম মহাসচিব লিয়াকত হোসেন খোকা উপস্থিত ছিলেন।

এদিকে, একাদশ জাতীয় সংসদের ৫০টি সংরক্ষিত নারী আসনে ভোটগ্রহণ করা হবে আগামী ৪ মার্চ। মনোনয়ন দাখিল শেষ হচ্ছে আজ, যাচাই-বাছাই ১২ ফেব্রুয়ারি এবং মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের শেষ দিন ১৬ ফেব্রুয়ারি।

একাদশ জাতীয় সংসদের সংরক্ষিত নারী আসনে ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগ ৪৩, বিরোধী দল জাতীয় পার্টি চার, বিএনপি এক, ওয়ার্কার্স পার্টি এক ও অন্যান্যদের মধ্যে স্বতন্ত্র তিনটি আসনের বিপরীতে একজন প্রতিনিধিত্ব করতে পারবেন। আওয়ামী লীগ ইতিমধ্যে ৪৩ জনের মনোনয়ন নিশ্চিত করেছে।

জানা যায়, সংরক্ষিত মহিলা আসনে নির্বাচনে ভোটের জন্য ওই দিন নির্ধারণ করে রাখা হলেও ফল জানা যাবে তার আগেই। সংশ্লিষ্ট রাজনৈতিক দল থেকে যাকে মনোনয়ন দেয়া হয় তিনিই এমপি নির্বাচিত হন।

জুমবাংলানিউজ/ জিএলজি