খেলাধুলা

যেভাবে এখনো বিশ্বকাপ দলে দেখা যেতে পারে তাসকিনকে, জনালেন প্রধান নির্বাচক

ফাইল ছবি

স্পোর্টস ডেস্ক : ইনজুরিই যেন এবার কাল হয়ে দাঁড়ালো তাসকিন আহমেদের জন্য। আজ ঘোষিত বাংলাদেশের ইংল্যান্ডে আসন্ন বিশ্বকাপ ও আয়ারল্যান্ডে আসন্ন ত্রিদেশীয় সিরিজ কোনো দলেই নেই তার নাম। প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীন নান্নু জানিয়েছেন শতভাগ ফিট না থাকায় বাদ পড়েছেন তাসকিন, তবে এখনো সম্ভাবনা আছে তার।

১৮ তারিখে বিশ্বকাপ দল ঘোষণার কথা থাকলেও দুই এগিয়ে আজ (১৬ এপ্রিল) দুপুর ১২টা ৩০ মিনিটে মিরপুরে ঘোষণা করা হয়েছে বাংলাদেশের বিশ্বকাপ স্কোয়াডের ১৫ সদস্যের নাম। সেই সাথে জানানো হয়েছে আয়ারল্যান্ড সফরের ১৭ জনের নামও।

কিন্তু কোনো দলেই নাম নেই তাসকিনের। তার না থাকার কারণ হিসেবে ইনজুরি ও এখনো শতভাগ ফিট না হওয়াকেই জানালেন প্রধান নির্বাচক। গত দেড় বছর জাতীয় দলের হয়ে মাঠে নামেননি তাসকিন। সর্বশেষ বিপিএলে ভালো খেলে নিউজিল্যান্ড সফরের দলে ডাক পেলেও ইনজুরিতে পড়ে আর যাওয়া হয়নি। ফিরতে পারেননি ডিপিএলের প্রথম থেকেও।

তাসকিনের না থাকার প্রসঙ্গে মিনহাজুল আবেদীন বলেন, ‘২০১৭ সালের ২২শে অক্টোবর তাসকিন সর্বশেষ আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলেছিলো বাংলাদেশের হয়ে। ওটার পরেই কিন্তু লম্বা বিরতি চলছে। তারপরে নিউজিল্যান্ড সফরের জন্য ওকে নিয়ে চিন্তাভাবনা করছিলাম তখনই আবার ইনজুরিতে পড়ে গিয়েছে। সেই হিসাবে ও কিন্তু এখন পর্যন্ত পুরোপুরি ফিট নয়। আমাদের কাছে যে ফিজিওর রিপোর্টগুলি আছে সেই হিসাবে।’

তবে তাসকিনের আশা এখনো শেষ হয়ে যায়নি বলে জানান নির্বাচক। যদিও সেই আশা খুবই ক্ষীণ। আয়ারল্যান্ড সফরের দলের কেউ প্রত্যাশা মিটাতে না পারলে বা ইনজুরিতে ছিটকে গেলেই সুযোগ মিলতে পারে ২৪ বছর বয়সী এই পেসারের।

মিনহাজুল আবেদীনের ভাষায়, ‘ও একটা ম্যাচ খেলেছে ঘরোয়া ক্রিকেটে। আমরা দেখেছি। আরো কিছু ম্যাচ আছে। এটার পরেও এখনো সময় আছে। আয়ারল্যান্ড সফরে আমাদের ১৭ জন যাচ্ছে। কোনো পেস বোলার নিয়ে যদি কোনো কারণে ওখানে সমস্যার সৃষ্টি হয়। যদি দরকার পড়ে ব্যাকআপ হিসেবে তাসকিনকে বিবেচনা করা হবে।’

বিশ্বকাপ দল ঘোষণার শেষ তারিখ ২৩ এপ্রিল। তবে ২৩ মে পর্যন্ত দলে পরিবর্তন আনা যাবে। ৫ মে আয়ারল্যান্ডে শুরু হতে যাওয়া ত্রিদেশীয় সিরিজের (তৃতীয় দল ওয়েস্ট ইন্ডিজ) পারফরম্যান্স কিংবা চোটে নতুন কেউ যে লন্ডনের বিমান ধরবেন না, সেটি এখনই বলা যাচ্ছে না।

পেসার হিসেবে অধিনায়ক মাশরাফির সাথে আছেন মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন, মুস্তাফিজুর রহমান, আবু জায়েদ চৌধুরী রাহি ও রুবেল হোসেন। আলোচনায় না থাকা রাহিই এই দলের চমক।

বাংলাদেশের বিশ্বকাপ স্কোয়াড:
মাশরাফি বিন মুর্তজা (অধিনায়ক), তামিম ইকবাল, লিটন দাস, সৌম্য সরকার, সাকিব আল হাসান, মুশফিকুর রহিম (উইকেটরক্ষক), মোহাম্মদ মিঠুন, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, সাব্বির রহমান, মেহেদী হাসান মিরাজ, রুবেল হোসেন, মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন, মুস্তাফিজুর রহমান, আবু জায়েদ রাহী ও মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত।

জুমবাংলানিউজ/এসওআর