বিনোদন

ভারতজুড়ে বিতর্ক; বন্ধ হওয়ার আশঙ্কায় চ্যানেল সনির সিরিয়াল

নয় বছরের বালকের সঙ্গে প্রাপ্তবয়স্ক কনের বিয়ে দেওয়া নিয়ে বিতর্কের শুরু। এ যেন গল্পের গরু গাছে উঠার কাহিনীর মত।  কিন্তু প্রশ্ন হলো সিরিয়ালের সেটে কি সবই চলে যেতে পারে? হয়তো পারে। কেননা হিন্দি টেলিভিশন চ্যানেল সনি অন্তত তেমনটাই করে দেখিয়েছে।

টেলিকাস্ট হওয়ার আগে থেকেই বিতর্কের উপরের সারিতে রয়েছে সনি টেলিভিশনের সিরিয়াল ‘পেহরেদার পিয়া কি’। যেখানে নাবালকের সঙ্গে যুবতীর বিয়েও হচ্ছে, আবার ফুলশয্যাও দেখানো হচ্ছে। সাম্প্রতিক অতীতে মধুচন্দ্রিমায় যাওয়ার পরিকল্পনাও হয়েছে।

আর এমন সিরিয়াল শো’র বিরুদ্ধে ক্ষোভে ফেটে পড়েছেন দর্শকরা। ২০১৭ সালে এসে এমন কাহিনি দেখিয়ে কোন ধরনের বিনোদন চ্যানেল কর্তৃপক্ষ দর্শকদের দিতে চাইছেন। কিছুদিন আগেই এই প্রশ্ন তুলেছিলেন অভিনেতা করণ ওয়াহি। তাঁর সেই সমালোচনার জবাব দিয়েছিলেন আরেক অভিনেতা ও শোয়ের অন্যতম অঙ্গ সূইয়াশ রাই।

তবে এখন প্রতিবাদ ছড়িয়েছে নেটদুনিয়ায়। আর তা পৌঁছেছে ভারপ্রাপ্ত তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী স্মৃতি ইরানির দরবারে। অবিলম্বে এই বিকৃত কাহিনি বন্ধ করার আবেদন জানানো হয়েছে। আর এই আবেদনের পক্ষে পঞ্চাশ হাজারেরও বেশি স্বাক্ষর জমা পড়েছে। বিষয়টি খতিয়ে দেখার জন্য ইতোমধ্যেই ব্রডকাস্টিং কন্টেন্ট কমপ্লেন্টস কাউন্সিলকে (BCC) নির্দেশ দিয়েছেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী।

যদি সত্যিই এই সিরিয়ালের বিষয়বস্তু দর্শকদের দেখার অযোগ্য হয়। তবে তা বন্ধের নির্দেশ দিতেই পারে মন্ত্রণালয়। শোনা গেছে, সিদ্ধান্ত নেওয়ার ক্ষেত্রে পঞ্চাশ হাজারেরও বেশি মানুষের আপত্তির কথাও মাথায় রাখছেন কর্মকর্তারা।

এদিকে সিরিয়ালের মুখ্যচরিত্র তেজস্বী প্রকাশকে এ বিষয়ে প্রশ্ন করা হলে তাঁর উত্তর, পুরো কাহিনি না জেনেই প্রতিবাদে মুখর হয়েছে মানুষ। কেবলমাত্র মলাট দেখে পুরো বইয়ের ভাল-মন্দ বিচার করা যায় না। কাহিনিতে কোনও বিতর্কিত বিষয় নেই বলেই দাবি তাঁর। তবে তেজস্বীর এ দাবি মানা হবে কি না, তা আপাতত নির্ভরশীল স্মৃতির সিদ্ধান্তের উপরই।

Advertisements