বিনোদন

বিয়ের পর এই পরিবর্তনটুকু হবেই : কোয়েল

বিয়ের পর কেমন আছেন কোয়েল মল্লিক? এই প্রশ্নের উত্তর কোয়েল ভক্তরা জানতে চাইবেন এটাইতো স্বাভাবিক। সম্পতি টালিগঞ্জের এই জনপ্রিয় অভিনেত্রী নিজের পারিবারিক জীবন নিয়ে ভারতীয় একটি গণমাধ্যমকে নানা কথা বলেছেন। প্রযোজক নিসপাল সিংহের সঙ্গে কোয়েলের বন্ধুত্ব ইন্ডাস্ট্রিতে পা রাখার বছর দুয়েকের মধ্যে। তার পর প্রেম। কিন্তু দিনে কয়েক ঘণ্টা একসঙ্গে কাটানো আর এক ছাদের তলায় থাকা যে এক নয়, সে কথা বড় ক্লিশে হলেও নিখাদ সত্য।

চেনা গতটা বুঝেই সুখী দাম্পত্যের রহস্যটা শোনালেন, ‘‘আমাদের ফ্রেন্ডশিপ খুব তাড়াতাড়ি ক্লিক করে গিয়েছিল। রানে প্রচণ্ড অনেস্ট। এবং ওর একটা একটা সলিড পার্সোনালিটি আছে। ওর সঙ্গে মেশার পর মনে হয়েছিল প্রচণ্ড ডিপেন্ডেবল একজন মানুষ, যাকে বিশ্বাস করে অনেক কিছু বলা যায়। আর সব কথা তো মা-বাবার সঙ্গে শেয়ার করা যায় না। ওই একমাত্র মানুষ ছিল যার কাছে সব কথা নিশ্চিন্তে বলতে পারতাম।

বিয়ের পর কোন নিজের কোন পরিবর্তন বুঝতে পারছেন কি? এই প্রশ্নের জবাবে কোয়েল জানিয়েছেন, ‘পরিবর্তন হয়েছে বলতে দায়িত্ব বেড়েছে। এখন সিদ্ধান্ত নেয়ার সময় মা-বাবার সঙ্গে আমার নতুন সংসারের কথাও ভাবতে হয়। আসলে কী জানেন তো, বিয়ের পর এই পরিবর্তনটুকু হবেই। এ ব্যাপারে আমরা মেয়েরা এক বিনি সুতোর মালায় গাঁথা। তবে মানুষ হিসেবে কতটা বদলেছি, তার উত্তর বাকিরা দিতে পারবে।’’

গুজব কি তার জীবনে কোন প্রভাব ফেলেছে এই প্রশ্নের জবাবে কোয়েল জানিয়েছেন, ‘‘গুজব হল পার্ট অফ সেলেব্রিটি লাইফ। এটা আগেও হয়েছে এখনও হচ্ছে। তবে এ সব নিয়ে মাথা ঘামাই না। রিউমার যদি আমাকে প্রভাবিত করে, তা হলে কাজের পর বাকি সময়টা শুধু চিন্তা করতে থাকব, কে কী বলল, কোথায় কী লেখা হল তা নিয়ে! জীবনের সুন্দর মুহূর্তগুলো পাব না।’’

উল্লেখ্য, মুক্তির অপেক্ষায় রয়েছে কোয়েল অভিনীত সিনেমা ‘ছায়া ও ছবি’। সেখানে তিনি স্টার ‘রাই চ্যাটার্জি’র ভূমিকায়। রাই ভীষণ বদরাগী, সেটাই ইন্ডাস্ট্রির ধারণা। লম্বা বিরতির পর ফিরছেন কোয়েল, স্বাভাবিক ভাবে প্রশ্ন ওঠে, সাংসারিক ব্যস্ততাই কি বিরতির কারণ? উত্তরে বললেন, ‘‘না সেটা নয়। একটা ভাল গল্প, নতুন ধরনের স্ক্রিপ্টের অপেক্ষায় ছিলাম। নিজেকে আরও নতুন করে কী ভাবে প্রেজেন্ট করা যায়, সে ভাবনাটা ছিল। চ্যালেঞ্জ না থাকলে কাজের মজাটা চলে যায়। শুধু মনে হত, কমফর্ট জোন থেকে কী ভাবে বেরোব? তা না হলে নিজেকে এক্সপ্লোর করতে পারব না।’’

তার মানে কোয়েল মল্লিক এ বার আউট অ্যান্ড আউট নেগেটিভ চরিত্রের জন্যও রেডি? কোয়েলের উত্তর‘‘ডেফিনিটলি। তবে চরিত্রটা বিশ্বাসযোগ্য হওয়া চাই। আসলে সেলেব্রিটিদের সমাজের প্রতি অনেক দায়িত্ব থাকে। যখন ছেলেমেয়েরা আপনাকে অনুসরণ করছে, তখন ভেবেচিন্তে পা ফেলতে হয়। তা ছাড়া এখন মানুষের অ্যাটেনশন স্প্যান কমে গিয়েছে। তাই দর্শক যে আমাকে মিস করেছে, সেটা জেনে আই ফিল ব্লেসড।’’