খেলা-ধুলা

বর্ষসেরা আম্পায়ার আফ্রিকার মারাইস এরাসমাস

বর্ষসেরা আম্পায়ারের পুরস্কার জিতলেন দক্ষিণ আফ্রিকার মারাইস এরাসমাস। বৃহস্পতিবার সকালে আইসিসি এক বিবৃতিতে বিষয়টি নিশ্চিত করেছে।

পঞ্চম আম্পায়ার হিসেবে ‘ডেভিড শেফার্ড ট্রফি’ জিতলেন ৫২ বছর বয়সি এ আম্পায়ার। আইসিসির এলিট প্যানেল আম্পায়ার, ম্যাচ রেফারি এবং টেস্ট খেলুড়ে দলের অধিনায়ক ভোটের মাধ্যমে মারাইস এরাসমাসকে নির্বাচিত করেছেন। সেরার পুরস্কার জিততে এরাসমাসের সঙ্গে লড়াই হয়েছে রিচার্ড ইলিংওয়ার্থ, ব্রুছ ওক্সেনফোর্ড ও রিচার্ড কেটেলবোরোর। তবে শেষ পর্যন্ত ভোটে এগিয়ে থেকে এরাসমাস এ পুরস্কার জিতেছেন।

এরাসমাসের আগে ‘ডেভিড শেফার্ড ট্রফি’ জিতেছিলেন সায়মন ট্যাফেল (২০০৪-২০০৮), আলিম দার (২০০৯-২০১১), কুমার ধর্মসেনা (২০১২) ও রিচার্ড কেটেলবারো (২০১৩-২০১৫)।

২০১০ সালে আইসিসির এলিট প্যানেল আম্পায়ারিংয়ে যোগ দেন এরাসমাস। প্রোটিয়াদের হয়ে ৫৩টি প্রথম শ্রেণি ও ৫৪টি লিস্ট ‘এ’ ম্যাচ খেলা এরাসমাসের আম্পায়ারিংয়ে অভিষেক হয় ২০০৭ সালে কেনিয়া ও কানাডার ম্যাচের মধ্য দিয়ে। ট্রফি জয়ের পর এরাসমান বলেন,‘আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে দারুণ সময় যাচ্ছে। এর অংশ হতে পেরে আমি নিজেকে ভাগ্যবান মনে করছি। আমি ম্যাচ রেফারি, টেস্ট অধিনায়কদের প্রতি কৃতজ্ঞ। আমি আমার স্ত্রী অ্যাডেল ও ছেলে ক্রিস এবং জোয়ের কাছেও কৃতজ্ঞ। তাদের সহযোগীতা ও ছাড় দেওয়ার কারণে বিশ্বমঞ্চে আম্পায়ার হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করতে পেরেছি। আমার কোচ ডেনিস বার্নসকেও ধন্যবাদ। শেষ তিন বছর আমাদের দারুণভাবেই গাইডলাইন করেছেন।’

ভিডিও: কোন প্রকার বৈদ্যুতিক সংযোগ ছাড়াই জ্বলছে বাল্ব! বিস্মিত ওয়েব দুনিয়া ইউটিউবের এই ভিডিওতে

Add Comment

Click here to post a comment