জাতীয় বিভাগীয় সংবাদ রাজশাহী

নাটোরে হঠাৎ বাস ধর্মঘট, জনদুর্ভোগ

নাটোর প্রতিনিধি: নাটোরে অভ্যন্তরীণ বিরোধ ও শ্রমিককে মারপিটের অভিযোগে হঠাৎ বাস ধর্মঘট চলছে। ফলে উত্তরবঙ্গের সঙ্গে সারাদেশের যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন রয়েছে।

নাটোর

বৃহস্পতিবার (৮ নভেম্বর) সকাল থেকে জেলায় কোনও বাস ছেড়ে যায়নি এবং প্রবেশ করতে পারেনি। হঠাৎ করে শ্রমিক ধর্মঘটের কারণে বিপাকে পড়েছেন সাধারণ যাত্রী ও বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীরা।

শ্রমিক নেতারা জানান, নাটোর জেলা বাস মিনিবাস মালিক সমিতির সাথে রাজশাহী মালিক সমিতির বিরোধ এবং নাটোরের এক শ্রমিককে মারপিটের ঘটনায় সকাল থেকে সকল রুটের বাস বন্ধ করে দিয়েছে নাটোর মালিক সমিতি ও শ্রমিকরা। এতে করে নাটোর থেকে কোনও বাস ছেড়ে যায়নি এবং প্রবেশ করতে পারেনি। শ্রমিক ধর্মঘটের কারণে নাটোর থেকে সারাদেশের যোগাযোগ ব্যবস্থা বন্ধ হয়ে গেছে। হঠাৎ করে শ্রমিক ধর্মঘটের কারণে দুর্ভোগে পড়েছেন যাত্রীরা। ছোট ছোট যানবাহনে গন্তব্য স্থানে যাচ্ছেন সাধারণ মানুষ।

এদিকে ধর্মঘটের কারণ নিয়ে ধুয়াশায় রয়েছেন বাস সংশ্লিষ্টরা। তবে ধর্মঘটের বিষয়ে কিছুই জানেন না বলে জানিয়েছেন, নাটোর জেলা বাস মিনিবাস মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক সাজেদুল রহমান সাগর।

ধর্মঘট আহবানকারী নাটোর জেলা শ্রমিক ইউনিয়নের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক আকরাম হোসেন শ্রমিক নির্যাতনের প্রতিবাদে এই ধর্মঘট আহবান করার কথা বললেও কোনও শ্রমিক কখন কার হাতে কোথায় আহত হয়েছেন তা জানাতে পারেননি।

নাটোর জেলা পরিবহন শ্রমিক ইউনিয়নের কার্য নির্বাহী সদস্য সাইফুল ইসলাম জানান, বিরোধ মীমাংসা না হওয়া পর্যন্ত ধর্মঘট চালিয়ে যাওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন শ্রমিক নেতারা।

নাটোর জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি মোঃ শহীদুল ইসলাম বাচ্চু বলেছেন, শুক্রবার রাজশাহীতে ঐক্যফন্টের সমাবেশে লোকজন যেন যেতে না পারে সেজন্যই সরকারি দলের পক্ষ থেকে হঠাৎ এই ধর্মঘট ডাকা হয়েছে।

দ্রুত এর সমাধান করে বাস চলাচল স্বাভাবিক করার দাবি জানিয়েছেন তিনি।

শুক্রবার ঢাকায় ডেন্টাল ভর্তি পরীক্ষা ও শনিবার ময়মনসিংহ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি পরীক্ষা থাকায় উত্তরবঙ্গের পরীক্ষার্থীরা এই ধর্মঘটে মহাবিপাকে পড়েছেন।

এ ব্যাপারে নাটোরের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) ড. রাজ্জাকুল ইসলাম বলেন, বিষয়টি খোঁজ খবর নিয়ে সমাধানের চেষ্টা চলছে।

জুমবাংলানিউজ/একেএ