প্রবাসী খবর

দ. আফ্রিকায় দুর্বৃত্তদের গুলিতে বাংলাদেশী নিহত

দক্ষিণ আফ্রিকার বন্দর নগরী কেপটাউনের ইলসিস রিভার এলাকায় সন্ত্রাসীদের গুলিতে সোহেল কাজী (৪০) নামে বাংলাদেশি ব্যবসায়ী নিহত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ সময় রাত ৯টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত সোহেল কাজী শরীয়তপুর জেলার ভেদরগঞ্জ উপজেলার মহিষার ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডের মহিষার গ্রামের জলিল কাজীর ছেলে।

নিহতের পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, ওই দিন বিকেলে কেপটাউনের ইলসিস রিভার এলাকায় নিজ দোকানে ঢোকার সময় সন্ত্রাসীরা তার মাথায় ও পেটে গুলি করে। গুরুতর আহত অবস্থায় স্থানীয় লোকজন তাকে উদ্ধার করে হাসপাতাল নিয়ে যাওয়ার সময় মারা যায় সোহেল।

মহিষার ইউনিয়ন পরিষদের ৩নং ওয়ার্ড মেম্বার রবিন চৌধুরী বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

সোহেল কাজীর দোকানের কর্মচারী সবুজ জানান, সোহেল অন্য একটি দোকান থেকে এসে নিজের দোকানে ঢোকার সময় সন্ত্রাসীরা এলোপাতারি গুলি করে। এ সময় তার মাথায় এবং পেটে গুলি লাগে। গুরুতর আহত অবস্থায় হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার সময় মারা যান সোহেল। এছাড়াও আতিক নামে তার এক সহকর্মী সন্ত্রাসীদের গুলিতে আহত হয়েছেন বলে তিনি জানান।

নিহতের বড় ভাই বাচ্চু কাজি বলেন, আমার ভাই গত দুই দিন আগে ওই যায়গায় দোকানটি নিয়েছিলেন। আকস্মিকভাবে কে বা কারা কী কারণে আমার ভাইকে মেরে ফেললো আমরা বুঝে উঠতে পারছি না। আমরা তিন ভাই প্রায় পনের বছর যাবত আফ্রিকায় ব্যবসা করছি। সোহেল ছিল তিন ভাইয়ের মধ্যে মেজো। সোহেল তার স্ত্রী ও এক ছেলেসহ কেপটাউন এ দশ বছর যাবত সুনামের সঙ্গে ব্যবসা করে আসছিল। সোহেল যুব উন্নয়ন পরিষদ কেপটাউনের নেতা। সোহেলের মরদেহ পুলিশের হেফাজতে রয়েছে। প্রশাসনিক প্রক্রিয়া শেষে মরদেহ দেশে আনার ব্যবস্থা করা হবে বলে জানান তিনি।

এ বিষয়ে ভেদরগঞ্জ থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এসআই) সজল কুমার পাল জানান, আফ্রিকার কেপটাউনে সোহেল কাজী হত্যার ঘটনা তিনি শুনেছেন।

Advertisements