বিনোদন

ঢাকাই সিনেমায় সরাসরি ইংরেজি নাম ব্যবহার করা যাবেনা

সরাসরি ইংরেজি কোন নাম নয়, কিছু ক্ষেত্রে ব্যতিক্রম ছাড়া বাংলাদেশি সিনেমার নাম দিতে হবে বাংলাতেই। তথ্য মন্ত্রণালয়ের  নির্দেশনার প্রেক্ষাপটে প্রযোজনা সংস্থা ও সিনেমা পরিচালকরাও সতর্ক হয়ে উঠছেন সিনেমার নাম নির্ধারণের বিষয়ে।

আর বিষয়টি নতুন করে আলোচনায় উঠে এসেছে গুড মর্নিং লন্ডন সিনেমাটির নাম পরিবর্তনের খবরে। এর নতুন নাম দেয়া হয়েছে ‘ভালোবাসা এমন হয়’।

সিনেমাটির একজন অভিনেতা ঢাকায় একটি সংবাদপত্রকে দেয়া এক সাক্ষাতকারে বলেছেন ‘সেন্সর বোর্ড থেকে নিয়ম করে দেয়া হয়েছে যে ছবিতে ইংরেজি নাম ব্যবহার করা যাবেনা। সে কারণেই সংশ্লিষ্টরা বসে নতুন নাম দিয়েছেন”।

তবে ছবিটির পরিচালক তানিয়া আহমেদ বলেছেন, “প্রযোজনা সংস্থাই চেয়েছে বাংলাদেশি সিনেমা হিসেবে এর বাংলা নাম হোক। সেজন্যই নামে পরিবর্তন এসেছে। তবে সাথে ছোট করে গুড মর্নিং লন্ডনও উল্লেখ করা থাকবে”।

তথ্য সচিব ও ফিল্ম সেন্সর বোর্ডের চেয়ারম্যান মরতুজা আহমদ বলেছেন সিনেমার নামের ক্ষেত্রে তারা কোন নিয়ম বেঁধে দেননি।

যদিও পরিচালক সোহানুর রহমান সোহান বলছেন তথ্য মন্ত্রণালয় থেকে অনেক আগেই তাদের জানানো হয়েছে যে বাংলা সংস্কৃতি রক্ষার্থে ইংরেজি নাম ব্যবহার করা যাবেনা।

দু’দফায় আসা এ নির্দেশনা সব প্রযোজক পরিচালককে জানিয়ে দেয়া হয়েছে বলেও জানান তিনি।

 

তবে তিনি বলেন বাংলা নামের সাথে সঙ্গতিপূর্ণ ইংরেজি নাম ব্যবহার করা যাবে।

অন্যদিকে ফিল্ম সেন্সর বোর্ডের সদস্য এবং চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতির মহাসচিব মুশফিকুর রহমান গুলজার বিবিসিকে বলেন ইংরেজি ব্যবহার করা যাবেনা তা নয়, তবে ঢালাও ভাবে ইংরেজি নাম দেয়া যাবেনা।

“মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা অনুযায়ী ছবির গল্পের সাথে সঙ্গতিপূর্ণ হলে ইংরেজি নাম সেন্সর বোর্ড বিবেচনা করতে পারবে। কিংবা যেসব শব্দ বাংলাতেই বহুল প্রচলিত হয়ে গেছে বা বিকল্প বাংলা শব্দ না থাকলে সেসব ক্ষেত্রে ইংরেজি নাম দেয়া যাবে”।

তবে পরিচালকরা স্বীকার করেছেন যে গত কয়েক বছর ধরেই সিনেমার ইংরেজি নাম দেয়ার প্রবণতা লক্ষ্য করা গেছে।

সেটা বন্ধ করতেই নামের ক্ষেত্রে মন্ত্রণালয় থেকে এমন নির্দেশনা গেছিলো।

সুত্র- বিবিসি বাংলা

ভিডিওঃ মাত্র ৫ মিনিটে দেখে নিন পুরো সুলতান সুলেমানের ইতিহাস

Add Comment

Click here to post a comment

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.