খেলা-ধুলা

ডেসপিকেবল মি-৩ এর ট্রেলারে দম ফাটানো হাসি (ভিডিও)

প্রথম তারা দেখা দিয়েছিল ২০১০ সালে। সুপারভিলেন গ্রু আর তার মিনিয়নদের দলবলকে সেই সময় ডেসপিকেবল মি ছবিতে সৎ পথে এনে ছেড়েছিল তিন অনাথ বোন- মার্গো, এডিথ আর অ্যাগনেস। তার পরে গ্রুর এক ভাল বাবা হয়ে উঠতে বেশি সময় লাগেনি। ওই তিন মেয়েকে দত্তক নিয়ে অপরাধ জগতকে বিদায় জানিয়েছিল গ্রু!

কিন্তু, ২০১৩ সালে নিয়তির পরিহাসে চাকাটা একটু ঘুরে যায় ডেসপিকেবল মি ২ ছবিতে। সেখানে গ্রু প্রেমে পড়ে লুসি নামে এক সিক্রেট এজেন্টের। দুজনে মিলেই এক দুঁদে অপরাধীকে ধরার অপারেশন চালায়। গ্রু আবার ফিরে আসে তার আগের ফর্মে। তবে, এবার জগতের ভালর জন্য! ওই যে, বিষেই বিষক্ষয় হয়!

সেই সব পেরিয়ে এসে এবার ২০১৬ সালে চোখের সামনে এল ডেসপিকেবল মি ৩-এর প্রথম ট্রেলার। ফিরে এল সপরিবার গ্রু। এবারেও তার কাজ একই- এক ডাকসাইটে অপরাধী, যে এক মূল্যবান গোলাপি হিরে চুরি করে ফেরার, তাকে ধরা এবং বলাই বাহুল্য হিরে উদ্ধার করা! সেই অপরাধীর নাম বালথাজার ব্র্যাট। তার প্রধান হাতিয়ার চুইংগাম। শখ সব সময়েই নাচা!

খোশমেজাজে মিনিয়নরা

এহেন অপরাধীকে কীভাবে নাকাল করল গ্রুসি? মানে, গ্রু আর লুসি? সে রহস্য ফাঁস হবে ২০১৭ সালের ৩০ জুন প্রেক্ষাগৃহে। আপাতত নিচের ভিডিওয় রইল ছবির কয়েক ঝলক! দেখলে হাসতে হাসতে পেটে খিল ধরে যাবে! তবে একটাই যা দুঃখের ব্যাপার- ট্রেলারের একেবারে শেষে গিয়ে দেখা গেল দুই মিনিয়নকে। তবে মার্গো, এডিথ আর অ্যাগনেসের দেখা কিন্তু মিলল না। দেখা পাওয়া গেল না ডক্টর নেফারিওরও! তিনিই তো গ্রুর সকল কাজের কাজি! আশা করাই যায়, দ্বিতীয় ট্রেলারে সবার দেখা মিলবে! ততক্ষণ পর্যন্ত চোখ রাখুন ছবির ট্রেলারে!

ভিডিওঃ শোওয়ার ঘরে এসব কী করেন শ্রদ্ধা-আদিত্য, ফাঁস হল ভিডিও

Add Comment

Click here to post a comment