অপরাধ/দুর্নীতি আন্তর্জাতিক

ঘরে তালা দিয়ে ঘুমন্ত স্বামীকে পুড়িয়ে হত্যা করলো স্ত্রী!

দাম্পত্য কলহের জেরে স্বামীকে খুন করে ঘরে তালা দিয়ে আগুন ধরিয়ে দিল এক স্ত্রী। ঘটনাটি ঘটেছে ভারতের পশ্চিমবঙ্গের বীরভূমের সিউড়ির বড়বাগান এলাকায়।

জানা গেছে গণেশ-করুণা সরকার দম্পতির এখানেই সংসার। আট বছর আগে বিয়ে হয়। কিন্তু, বনিবনা হয়নি কখনই। ঝগড়া-বিবাদ লেগেই থাকত। শনিবার তা চরমে ওঠে ঝগড়ার পর ঘরে ঘুমিয়ে পড়েন গণেশ।

অভিযোগ, তারপর ঘরের বাইরে থেকে তালা লাগিয়ে দেয় করুণা। এরপরই আগুন লাগিয়ে দেয়। প্রচণ্ড ধোঁয়ার দমবন্ধ হয়ে মারা যান গণেশ। স্বামীকে খুন করে ঘরে তালা দিয়ে আগুন ধরিয়ে দিল স্ত্রী।

এ ঘটনা বীরভূমের বড়বাগান পাঁচের পল্লির। অভিযুক্ত স্ত্রীর বিরুদ্ধে সিউড়ি থানায় অভিযোগ দায়ের করেছে পরিবার। লাপাত্তা অভিযুক্ত স্ত্রী।

দাদার চিত্‍কারে ছুটে বেরিয়ে আসেন কার্তিক সরকার। দেখেন, দাউ দাউ করে জ্বলছে গোটা ঘর। দরজা ভেঙে গণেশের দেহ উদ্ধার করেন তাঁরা। সন্দেহ স্বামীকে খুন করেছেন স্ত্রী করুণাই।

গণেশের চিত্কারে ছুটে আসেন পাড়া প্রতিবেশীরাও। দরজা ভেঙে উদ্ধার করা হয় তাঁকে। হাসপাতালে নিয়ে গেলে তাকে মৃত ঘোষণা করেন চিকিত্সকরা। পাড়া প্রতিবেশীর অভিযোগ, গণেশকে খুন করেছেন করুণা। যদিও তা মানতে নারাজ করুণা। করুণার বিরুদ্ধে সিউড়ি সদর থানায় অভিযোগ দায়ের করেছে পরিবার। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে সিউড়ি থানার পুলিশ।