বিনোদন

সে বাঙালি নায়িকা ক্যামেরার সামনে নগ্ন হয়েছেন

অভিনয় তাদের পেশা। নেশাও। সিনেমাতেও সাহস দেখানো যায় ৷ সে সাহস দেখাতেই আনা হয় অভিনেতা-অভিনেত্রীদের ৷ পরিচালকদের অ্যাকশন টু কাটের মাঝের সময়টুকই দিতে হয় তাঁদের অভিনয়-দক্ষতার প্রমাণ ৷ সেলুলয়েডের চরিত্রগুলোকে প্রাণ দেওয়া হয় বাস্তবতায়।

কখনও কখনও চিত্রনাট্যের প্রয়োজনে ক্যামেরার সামনে নিজেরা নগ্ন হতেও একটিবার তাঁরা পিছ-পা হন না। এমন সব বাঙালী অভিনেত্রীরা যারা বারেবারে বুঝিয়ে দিয়েছেন ছবির চরিত্রের জন্য সব পারেন ৷ এমন সাহসী পদক্ষেপ নেওয়া কয়েকজন বাঙালি অভিনেত্রীকে জানুন।

২০১৪তে মুক্তি পায় ‘কসমিক সেক্স’৷ সেই ছবিতে রয়েছে ফ্রন্টাল ন্যুডিটি তাই নন্দনে সেটি দেখানোয় নিষেধাজ্ঞা জারি হয় ৷ সেই ছবিতেই ক্যামেরার সামনে নগ্ন হয়ে অভিনয় করেছেন ঋ।


২০১০ এ মুক্তি পাওয়া ‘গাণ্ডু’তে ক্যামেরার সামনে নগ্ন হয়েছিলেন কমলিকা মুখোপাধ্যায়। ব্যাক নিউডিটি দেখিয়েছিলেন কমলিকা ৷


২০১১-এ মুক্তিপ্রাপ্ত ‘ছত্রাক’-এ নায়িকার ফ্রন্টাল ন্যুডিটি শুট হয়েছিল। এই ছবির জন্য সমালোচকদের প্রশ্নের মুখেও পড়তে হয়েছিল পাওলি দামকে।


‘রংরসিয়া’র নন্দনা সেনকে মনে আছে? এই ছবিতেও ক্যামেরার সামনে নগ্ন হয়েছিলেন এই বাঙালি নায়িকা।


‘ব্যান্ডিট কুইন’-এ সীমা বিশ্বাসের নগ্ন হয়ে নদী পেরিয়ে জল আনতে যাওয়ার দৃশ্য ঝড় তুলেছিল ছবির দুনিয়ায়, সেই সময়ে।


মহাশ্বেতা দেবীর গল্প অবলম্বনে ‘গাঙ্গোর’ ছবিটি ২০১০ এ মুক্তি পেয়েছিল । সেখানে এক সাঁওতালি মায়ের ভূমিকায় অভিনয় করেছিলেন প্রিয়ঙ্কা বসু। যেখানে শিশুকে স্তন্যপান করানোর সময় নগ্ন হতে হয়েছিল তাঁকে।

Advertisements