অপরাধ-দুর্নীতি গাজীপুর জমিজমা সংক্রান্ত ঢাকা বিভাগীয় সংবাদ

কালীগঞ্জে নাভানার বিরুদ্ধে সরকারি সম্পতি দখল করে ভরাটের অভিযোগ

বিশেষ প্রতিবেদক: কালীগঞ্জে ‘ক’ তালিকাভুক্ত ৮০ শতাংশ সরকারি সম্পতি দখল করে ভরাট করছে নাভানা ইঞ্জিনিয়ারিং লিমিটেডে কর্তৃপক্ষ।

জানাযায়, কালীগঞ্জ-ঘোড়াশাল বাইপাস সড়ক-সংলগ্ন পৌর এলাকার বালীগাঁও গ্রামে অবস্থিত নাভানা ইঞ্জিনিয়ারিং লিমিটেডের পাইপ এন্ড প্লাস্টিক কারখানাটি। ২০১৭ সালের ৮ই এপ্রিল ৬৬১ শতাংশ জমির উপর স্থাপিত কারখানাটি অনুষ্ঠানিকভাবে উদ্বোধন করা হয়।

নাভানা ইঞ্জিনিয়ারিং লিমিটেডের পাইপ এন্ড প্লাস্টিক কারখানার পাশে কালীগঞ্জ পৌর এলাকার বালীগাঁও মৌজায় রয়েছে ‘ক’ তালিকাভূক্ত এসএ ৪৫৪ খতিয়ানের অন্তভূর্ক্ত দাগ নং ১০৯৭ ও ১২৫৪ এবং আরএস ৬৬৯ খতিয়ানের অন্তভূর্ক্ত ১৭৯৭ নং দাগে ৮০ শতাংশ বোর শ্রেণির অর্পিত সম্পত্তি।

স্থানীয়দের অভিযোগ কারখানাটি উদ্বোধন পর থেকেই ওই জমিটির দিকে নজর পড়ে নাভানা কর্তৃপক্ষর। এরপর চারদিকে সীমানা প্রাচীর নির্মাণ করে অবৈধভাবে জমিটি দখলে নেয় নাভানা। পরে তারা চলতি বছরের ৬ ফেব্রুযয়ারি ৩১.৪১.৩৩৩৪.০০১.০০.০০০.১৮- ৫১ নং স্মারকে সম্পূর্ণ অস্থায়ী ভিত্তিতে জমিটি সরকারের কাছ থেকে ৩১ চৈত্র ১৪২৪ বঙ্গাব্দ পর্যন্ত একসনা লিজ নেয়।

তারপর শ্রেণি পরিবর্তনের উদ্দেশে চারদিকে সীমানা প্রাচীর নির্মাণ করে লিজের সকল শর্ত ভঙ্গ করে বালু ও মাটি দিয়ে জমিটি ভরাট শুরু করে । এদিকে লিজের মেয়াদ শেষ হলেও এখনো তাদের অবৈধভাবে বালু ও মাটি ভরাট চলছে।

যদিও লিজের শর্তে উল্লেখ রয়েছে উক্ত সম্পত্তির উপর থেকে কোন প্রকার গাছ-পালা কর্তন বা মাটি ভরাট বা মাটি কর্তন করা যাবে না।

এছাড়াও আরো উল্লেখ রয়েছে বিনা অনুমতিতে লিজকৃত সম্পত্তির উপর ঘর-বাড়ি নির্মাণ বা কোন প্রকার শ্রেণি পরিবর্তন করলে বিনা নোটিশে ইজারা বাতিল করে আগ্রহী ব্যক্তিকে লিজ দেয়া হবে।

সরজমিনে দেখা যায়, জমিটি দখল করে চারদিকে সীমানা প্রাচীর নির্মাণ করে বালু ও মাটি দিয়ে ভরাট করছে নাভানা কর্তৃপক্ষ।

এ ব্যাপারে কালীগঞ্জ উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. সোহাগ হোসেন বলেন, লিজকৃত সম্পত্তিতে বালু ও মাটি দিয়ে ভরাটের খবর পেয়ে তা বন্ধ করে দেয়া হয়েছে।

এছাড়াও তিনি জানান, লিজের মেয়াদ শেষ হওয়ার পর নবায়নের জন্য আবেদন করেছে নাভানা ইঞ্জিনিয়ারিং লিমিটেডে যা এখন প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

বিষয়টি তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য সংশ্লিষ্টদের নির্দেশ দেওয়া হবে বলে জানান, ভূমি মন্ত্রনালয়ের অর্পিত সেলের দায়িত্বে থাকা যুগ্ম সচিব (আইন-৪) মোঃ কামরুল হাসান ফেরদৌস।