বিনোদন

এবার তৈরি হল ৫৪ কেজির আস্ত ‘দঙ্গল কেক’

বক্স অফিসে রেকর্ড অঙ্কের মাইলস্টোন ছুঁয়েছে মিস্টার পারফেকশনিস্ট আমির খানের ছবি ‘দঙ্গল’। ভারতের সীমানা পেড়িয়ে বিদেশের মাটিতেও এই ছবি রমরমিয়ে ব্যবসা করেছে। চীনে ভূয়সী প্রশংসা কুড়িয়ে নিয়েছিল ভারতীয় কুস্তিগির গীতা ও ববিতা ফোগাটের জীবনী নিয়ে তৈরি এই ছবি। তবে সেই ছবি নিয়ে পাগলামো যে এখনও শেষ হয়নি, তারই আবার প্রমাণ মিলল। এবার ভারতের স্বাধীনতা দিবসের সঙ্গে জুড়ে দেওয়া হল ‘দঙ্গল’ ছবিকে।

৫৪ কেজির আস্ত একটি ‘দঙ্গল কেক’ তৈরি করা হয়েছে। যেখানে মহাবীর ফোগাট অর্থাৎ আমির খান তাঁর দুই মেয়েকে কুস্তির আখড়ায় প্রশিক্ষণের দৃশ্য ফুটিয়ে তোলা হয়েছে। তবে ভারতীয় কোন বেকারি এই বিরাট কেকটি বানায়নি। দুবাইয়ের ব্রডওয়ে বেকারিতে তৈরি হয়েছে এই কেক। দীর্ঘ এক মাস ধরে শিল্পী এই কেক তৈরি করেছেন। আর তা বানাতে খরচ হয়েছে প্রায় ২৫ লক্ষ টাকা।
বেকারি জানাচ্ছে, বিশ্বের সর্ববৃহৎ ভোজ্য কেকটি ২৪০ জন আরাম করে খেতে পারবেন।

জানা গিয়েছে, ক্রেতার দাবি ছিল, এই মহামূল্যবান কেকের কিছু অংশকে সোনায় মুড়ে দিতে হবে। তার সেই ইচ্ছাও পূরণ করা হয়েছে। কেকের দু’পাশে দু’টি সোনার পদক রয়েছে। যা মনে করিয়ে দিয়েছে গীতা ফোগাটের দিল্লি কমনওয়েলথ গেমসে সোনা জয়ের স্মৃতি। সেই পদক দু’টিকে ৭৫ গ্রাম ভোজ্য সোনা দিয়ে তৈরি করেছেন শিল্পী।

বেকারির পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, ১০০ শতাংশ ভোজ্য এই কেকটি সিগনেচার চকোলেট স্পঞ্জ, বেলজিয়াম চকোলেট, ভোজ্য সোনার মতো দামি উপকরণ দিয়ে তৈরি। তাই নিঃসন্দেহে এর দামও আকাশছোঁয়া। ‘দঙ্গল’ ছবি দুবাইয়েরও মন ছুঁয়েছে। আর তাই ভারতের ৭১তম স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে এই কেক তৈরি করেছে ব্রডওয়ে বেকারি।