খেলাধুলা

আমির থেকে আইসিসি বর্ষ সেরা মুস্তাফিজই সেরা

পাকিস্তানের আমির থেকে বাংলাদেশের মুস্তাফিজকে সেরা বললেন ভারতের প্রাক্তন ক্রিকেটার ভিভিএস লক্ষ্মণ। কেন সেরা তারও ব্যাখা দিয়েছেন তিনি।

২০১০ সালে ফিক্সিংয়ে জড়িয়ে পাঁচ বছর ক্রিকেট থেকে দূরে ছিলেন মোহাম্মদ আমির। ২০১৫ সালের শেষ দিকে আবারও আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে পদচারণা শুরু হয় পাকিস্তানের বাঁহাতি এ পেসারের। ফিক্সিংয়ে জড়ানোর আগে আমির ছিলেন পাকিস্তান ও বিশ্ব ক্রিকেটের অন্যতম সেরা বাঁহাতি পেসার। এখনও তাই।

ক্রিকেটে ফিরে মোহাম্মদ আমির পুরনো ধার ধরে রাখতে পেরেছেন। পুরনো গতি, সুইং ও যাদুকরী বোলিংয়ে আমির অনন্য। তবে আমিরকে ‘টক্কর’ দেওয়ার জন্য পুরোপুরি তৈরি হয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে এসেছেন বাংলাদেশের পেস তারকা মুস্তাফিজুর রহমান।

২০১৫ সালে অভিষেকের পর থেকে মুস্তাফিজ পুরো বিশ্বকে এক কাতারে নিয়ে এসেছেন। নিজের মনোমুগ্ধকর বোলিংয়ে সবাইকে বিস্মিত করছেন বাঁহাতি এ পেসার। আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে শুরু করে আইপিএল পর্যন্ত সর্বত্র মুস্তাফিজের পদচারণা। আমিরও কম যাচ্ছেন না। তবে সীমিত পরিসরের ক্রিকেটে মুস্তাফিজকেই সেরা বললেন ভারতের প্রাক্তন ব্যাটসম্যান ভিভিএস লক্ষ্মণ।

ভারতের একটি গণমাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে ভিভিএস লক্ষ্মণ বলেন, ‘আমি মনে করি সীমিত পরিসরে মুস্তাফিজুর রহমান মোহাম্মদ আমিরের থেকে এগিয়ে। মোহাম্মদ আমিরের থেকে মুস্তাফিজের বোলিংয়ের বৈচিত্র্য বেশি। আমির নতুন বলে বেশ কার্যকরী। কিন্তু পুরনো বলে তাকে স্ট্রাগল করতে হয়। তবে তার ইয়র্কার অনেক ভয়ংকর। অন্যদিকে মুস্তাফিজের বৈচিত্র্য অনেক। তার যেমন রক্ষণাত্মক কৌশল আছে ঠিক তেমনি আক্রমণাত্মক কৌশল। সে বল ভিতরে ঢুকাতে পারে আবার বল ব্যাটসম্যানের থেকে এড়িয়ে নিয়ে যেতে পারে। দুটি ইয়র্কার সে প্রয়োগ করতে পারে। একটি ওয়াইড ইয়র্কার, আরেকটি ব্লক ইয়র্কার। যেটা সরাসরি ব্যাটসম্যানের টো’র উপরে পড়ে। তার গতিতেও বৈচিত্র্য রয়েছে। তার কাটার ডানহাতি ব্যাটসম্যানদের জন্য দূর্বোধ্য। বলের ওপর বাড়তি নিয়ন্ত্রণের কারণে আমিরের থেকে অনেকাংশে এগিয়ে মুস্তাফিজুর রহমান।’

প্রসঙ্গত ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগে ভিভিএস লক্ষ্মণের দল সানরাইডার্স হায়দরাবাদের হয়ে খেলেছিলেন মুস্তাফিজুর রহমান। তাই মুস্তাফিজের বোলিং খুব কাছ থেকে দেখেছেন ভারতের এই প্রাক্তন ক্রিকেটার।

ভিডিও নিউজ :১৫০ বছর আগের ঢাকা কেমন ছিলো দেখুন এক নজরে!!! (ভিডিও)

Add Comment

Click here to post a comment

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.