খেলা-ধুলা

আফ্রিদি যে মহান কাজটি করে সবাইকে অবাক করে দিলেন

আফ্রিদরি ফাউন্ডেশন সেই সব দুর্গম জায়গায় চলে যাচ্ছে শিশুদের বাঁচাতে। ওখানে মা এবং শিশুদের জন্য হাসপাতাল তৈরি করেছি।

সব ধরণের ক্রিকেট থেকে নিজেকে সরিয়ে নিয়েছেন পাকিস্তান ক্রিকেটের তারকা শহীদ আফ্রিদি। এখন তার মূল কাজ সমাজসেবা।

তাইতো কলকাতার একটি দৈনিককে দেওয়া সাক্ষাৎকারে সাবেক পাকিস্তান অধিনায়ক বলেন, আফ্রিদির ফাউন্ডেশনের প্রধান কাজটা হচ্ছে থর মরুভূমি অঞ্চলে।

ওই সব দুর্গম অঞ্চলে এমন কিছু জায়গা আছে, যেখানে বাচ্চারা জন্মের ৩ মাসের মধ্যেই মারা যায়! কুসংস্কারের তীব্রতা, খাদ্য এবং চিকিৎসার অভাবে এমন করুণ পরিণতি বরণ করতে হয় শিশুদের।

আফ্রিদরি ফাউন্ডেশন সেই সব দুর্গম জায়গায় চলে যাচ্ছে শিশুদের বাঁচাতে। ওখানে মা এবং শিশুদের জন্য হাসপাতাল তৈরি করেছি।

তার এই ফাউন্ডেশনের মূল কাজ অসহায় মানুষদের পাশে দাড়ানো। এই ফাউন্ডেশন গড়ে তুলতে নিয়মিত সহায়তা করে যাচ্ছেন ভারতীয় ক্রিকেটাররা।

আফ্রিদির ভাষায়, ‘আমার লক্ষ্যই হচ্ছে পাকিস্তানে যত প্রত্যন্ত এলাকা আছে, সেখানে স্বাস্থ্য সমস্যা আর জল সংকট দূর করা।

আমরা সেরকম অনেক জায়গায় হাসপাতাল তৈরির চেষ্টা করছি। যেমন খাইবার অঞ্চলের তিরাহ উপত্যকা।

ওখানে সামান্য বিশুদ্ধ খাবার পানি জোগাড় করতে ১২-১৩ কিলোমিটার হাঁটতে হয়।

আমরা সে জায়গায় পানীয় জল সরবরাহের ব্যবস্থা করছি। হিন্দু-মুসলমান সবার জন্য আমার ফাউন্ডেশন এই কাজটা করে চলেছে।’