Default

১৮ ডিসেম্বর প্রধানমন্ত্রী নয়াদিল্লী যাচ্ছেন

eপ্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আগামী ১৮ ডিসেম্বর ভারত সফরে যাবেন। এ সফরটি হবে তিনদিনের। ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর আমন্ত্রণে এই সফরে দ্বিপাক্ষিক কয়েকটি ইস্যুতে চুক্তি ও সমঝোতা স্মারক সই হতে পারে। তবে বহু বছর ধরে ঝুলে থাকা তিস্তাসহ অভিন্ন নদীগুলোর পানি বণ্টন ইস্যু দুই প্রধানমন্ত্রীর আলোচনায় প্রাধান্য পাবে বলে কূটনৈতিক সূত্র জানায়।

পাশাপাশি বাংলাদেশের উদ্যোগে তিস্তা ব্যারেজ নির্মাণে ভারতের অংশগ্রহণের ব্যাপারে আলোচনা হতে পারে। একাত্তরের মুক্তিযুদ্ধে পাক বাহিনীর সঙ্গে যুদ্ধে নিহত ভারতের সামরিক বাহিনীর সদস্যদের সম্মাননা দিতে বিশেষ অনুষ্ঠানে যোগ দেবেন প্রধানমন্ত্রী।

প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী, প্রায় ৪ হাজার ভারতীয় সৈন্য বাংলাদেশের পক্ষে যুদ্ধ করতে গিয়ে প্রাণ হারান। নিহত সৈন্যদের পরিবারের সদস্যদের হাতে সম্মাননা তুলে দেবেন প্রধানমন্ত্রী। দুই দেশের কর্মকর্তারা প্রায় দুইশ নিহত সৈন্যের তালিকা সর্বশেষ গত ১৬ অক্টোবর ভারতের পর্যটন নগরী গোয়ায় ব্রিকস-বিমসটেক আউট রিচ সম্মেলনের সাইড লাইনে শেখ হাসিনা ও নরেন্দ্র মোদী দ্বিপাক্ষিক বৈঠক করেন।

গত বছর জুনে নরেন্দ্র মোদী বাংলাদেশে দ্বিপাক্ষিক সফর করেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আসন্ন সফর হবে মোদীর ঢাকা সফরের ফিরতি। দুই দেশের কর্মকর্তারা এখন শেখ হাসিনার আসন্ন দিল্লী সফরের কর্মসূচি ও এজেন্ডা চূড়ান্ত করছেন। পররাষ্ট্র সচিব শহীদুল হক প্রধানমন্ত্রীর সফর উপলক্ষে তিনদিনের জন্য নয়াদিল্লী সফর করে বৃহস্পতিবার ঢাকায় ফিরে এসেছেন। তিনি ভারতের পররাষ্ট্র সচিব এস জয় শংকরের সঙ্গে বুধবার আলোচনা করেন। আগামী এক মাসের মধ্যে ঢাকা ও নয়াদিল্লীর মধ্যে কর্মকর্তা পর্যায়ে আরো সফর বিনিময় হবে।

প্রধানমন্ত্রীর নয়াদিল্লী সফরের দিন প্রথমে ৩ ও ৪ ডিসেম্বর নির্ধারণ করা হয়। পরে তা ১৮ থেকে ২০ ডিসেম্বর চূড়ান্ত হয় বলে সূত্র জানায়।

Advertisements

Add Comment

Click here to post a comment