Advertisements
জাতীয়

সেতুর কিছু অংশ ধসে আটকে গেল বাস

টাঙ্গাইলের দেলদুয়ার-কালামপুর সড়কের চরপাড়ায় একটি সেতুর কিছু অংশ ধসে যাওয়ায় ওই সড়কে যানবাহন চলাচল বন্ধ হয়ে গেছে। শুক্রবার ভোরে এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, দিনাজপুর থেকে ঢাকাগামী হানিফ পরিবহনের একটি বাস ভোর চারটার দিকে চরপাড়া এলানজানি নদীর সেতু অতিক্রম করার সময় সেতুটির দক্ষিণ অংশের অ্যাপ্রোচ অংশ ধসে যায়। এতে বাসটি সেখানে আটকে যায়। অ্যাপ্রোচ হলো সেতু ও রাস্তার সংযোগ অংশ।

দেলদুয়ার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোশাররফ হোসেন বলেন, শুক্রবার দুপুরে রেকার দিয়ে বাসটি সরিয়ে নেওয়া হয়।

ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে যানজট এড়ানোর জন্য অনেক যানবাহন বিকল্প রাস্তা হিসেবে এ সড়ক ব্যবহার করে থাকে। টাঙ্গাইল শহর থেকে দেলদুয়ার উপজেলা সদর হয়ে সড়কটি ঢাকা-আরিচা সড়কের কালামপুরে উঠেছে।

টাঙ্গাইল এলজিইডির নির্বাহী প্রকৌশলী দেলোয়ার হোসেন বলেন, নদীর প্রবল স্রোতে সেতুর অ্যাপ্রোচের মাটি ধসে যাওয়ায় এ দুর্ঘটনা ঘটেছে। ক্ষতিগ্রস্ত অংশের ওপর বাঁশের সাঁকো তৈরি করে সাধারণ জনগণের চলাচলের ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।

দুর্ঘটনার খবর পেয়ে আজ বিকেলে ডাক টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম সেতুটি পরিদর্শন করেন এবং দ্রুত এটি সংস্কারের আশ্বাস দেন।

দেলদুয়ার উপজেলা প্রকৌশলী মীর আলী শাকিল বলেন, শিগগিরই বালির বস্তা ফেলে সেতুটি সাময়িক চলাচলের উপযোগী করা হবে। বর্ষার পর স্থায়ী মেরামতের উদ্যোগ নেওয়া হবে।

এ ব্যাপারে দেলদুয়ার উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এস এম ফেরদৌস আহমেদ বলেন, সাময়িকভাবে চলাচলের ব্যবস্থা করার জন্য স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান ও এলজিইডি বিভাগকে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। সূত্র- প্রথম আলো

Advertisements





সর্বশেষ খবর