জাতীয় বিভাগীয় সংবাদ রংপুর

সিগারেট খাওয়ার জেরে যুবক খুন

ঠাকুরগাঁওয়ে সিগারেট খাওয়ার জেরে এক যুবক নিহত হয়েছেন। গুরুতর আহত হয়েছেন আরো একজন। মঙ্গলবার রাত ১২টার দিকে শহরের মুন্সিরহাট এলাকায় ওই হত্যাকাণ্ড ঘটে বলে প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে।

প্রত্যক্ষদর্শী ইসলামনগরের জনি জানায়, সপ্তাহ খানেক আগে ইসলাম নগরের (খানকাশরীফ) মান্নান (৩২) তার বন্ধু বড়বাড়ির শান্তর’র কাছে যায়। এ সময় মন্দিরপাড়ার গৌরাঙ্গ দত্তের ছেলে সজীব দত্ত তাদের সিগারেট খেতে দেখে ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠে। বয়সে ছোট হওয়ার কারণে, মেনে নিতে না পেরে হট্টগোল বাধিয়ে দেয়। তাৎক্ষণিক সমস্যা না হলেও সজীব মনের ভেতর জেদ পুষে রাখে। মঙ্গলবার রাতে মান্নান শহর থেকে বাড়ি ফেরার পথে সজীব, শান্ত ও অজ্ঞাত একজন মান্নানকে ধাওয়া করে। এসময় মান্নান মুঠোফোনে জনিকে ধাওয়া খাওয়ার ঘটনা জানায়। জনি, জুম্মন ও সুমন নামের তিন যুবক দ্রুত তাদের উদ্দেশ্যে রওনা হয়। মুন্সিরহাটের কাছে গিয়ে দেখে সজীব ধারালো ডেগার দিয়ে মান্নানের পিঠে এলোপাতারি কোপাতে থাকে। এসময় জুম্মন তাকে আটকাতে গেলে শান্ত তাকে পেচিয়ে ধরে। এসময় সজীব জুম্মনের পায়েও ডেগার মেরে পালিয়ে যায়।

যুবক খুন

তিনি আরোজানান, গুরুতর অবস্থায় জনি ও সুমন তাদের উদ্ধার করে ঠাকুরগাঁও আধুনিক সদর হাসপাতালে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মান্নানকে মৃত ঘোষণা করেন।

হত্যাকাণ্ডের খবর পেয়ে ঠাকুরগাঁও পুলিশ সুপার ফারহাত আহমেদ হাসপাতালে ছুটে যান। মৃতের পরিবারকে আসামিদের দ্রুত আইনের আওতায় নিয়ে আসার আশ্বাস দেন।

এ ব্যাপারে সজীবের বড় ভাই জেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক দেবাশীষ দত্ত সমীরের কাছে জানতে চাইলে তিনি জানান, তার বাবা গুরুতর অসুস্থ হবার কারণে, সে তাকে নিয়ে ব্যস্ত। ওই ঘটনা মিডিয়ার ভাইদের কাছ থেকে জেনেছেন। তিনি আরো বলেন, যদি কেউ কোনো খারাপ কাজ করে থাকে, তবে তার দায় অভিযুক্তকেই নিতে হবে।