অন্যরকম খবর ভিডিও

সিংহের বাচ্চার পিতৃস্নেহ দেখে আপনি অবাক হবেন

1aতাদের বাপ এক জলজ্যান্ত পুরুষসিংহ। তাই চার মাস বয়স হবার আগে তাদের বাবার কাছে আসতে দেওয়া হয়নি। এবার মায়ের সাথে বাপের কাছে এলো যদি বা, বাপের হাঁকডাক শুনে পিলে চমকে যাবার কথা।এখানে ক্লিক করে ভিডিওটি দেখুন।

মার্কিন মুলুকের সান ডিয়েগো সাফারি পার্কের লায়ন ক্যাম্প। তারিখটা সম্ভবত তেসরা অক্টোবর, ২০১৪, কেননা ভিডিওটা সেইদিনই পাবলিশ করা হয়। তারপর সিংহশাবকদের পিতৃসন্দর্শনে যাওয়ার এই রাজকীয় দৃশ্য দেখেছেন আঠাশ লাখের বেশি দর্শক।

আগে নামধামগুলো বলে নেওয়া যাক। সিংহদম্পতির নাম হল ইজু আর ওশানা। মা ওশানা তার চার ছানা নিয়ে এতোদিন অন্য এনক্লোজারে ছিল, যদিও সেখান থেকে বাবা ইজুকে দেখা যেত। ছানাদের নাম আর্নেস্ট, ইভলিন, মারিওন আর মিস এলেন- একটি ছেলে ও তিনটি মেয়ে।

বাবা ইজুকে প্রথমে এক মাস ধরে নিরাপদ দূরত্ব থেকে দেখেছে তার ছানাপোনারা। তারপর ইজু বেড়ার ফাঁক দিয়ে তার (সর্বাধুনিক) খোকাখুকিদের গন্ধ শুঁকেছে, এমনকি চেটে আদর করেছে। তাই এবার গোটা পরিবারকে একসঙ্গে করার কথা ভাবা হয়েছে।

আর্নেস্ট, ইভলিন, মারিওন আর মিস এলেন তো একদৌড়ে ছুটে বেরিয়ে এসেছে, বাবাকে দেখবে বলে। আর এ বাবাও দেখবার মতো বাবা! বাবা কিন্তু প্রথমেই যা দেখাল, তা হল তার পাতকুয়োর মতো বড় হাঁ আর ইস্ক্রুপ-ড্রাইভারের মতো বড় বড় দাঁত দেখে খোকাখুকিরা কেউ উল্টে পড়ে তো কেউ পালানোর পথ পায় না।

বাবা ইজু এদিকে নিশ্চয় ভাবছে, ছেলেপিলেদের গোড়াতেই সম্ভ্রম শেখানো উচিত। এখনই ন্যাজ নিয়ে খেলা করতে চায়, পরে হয়ত মাথায় চড়ে নাচবে। তাই ইজু তার খোকাখুকি, গিন্নি আর জু কিপারদের সকলকেই একবার সিংহ গর্জ্জন কাকে বলে, সেটা শুনিয়ে দিল।

হুম বাবা, মার্জার প্রজাতির মধ্যে একমাত্র সিংহরাই যাকে বলে কিনা সোশ্যাল, মানে তারা দল বেঁধে থাকে পুরনো জয়েন্ট ফ্যামিলি সিস্টেমে। কাজেই ইজুকে তার কর্তৃত্ব রক্ষা করতে হবে না? সে তো আর কারোর ওপর থাবা বসায়নি, দাঁত তো দূরের কথা। সিংহের বাচ্চার কাছে ঐ হলো পিতৃস্নেহ…। এখানে ক্লিক করে ভিডিওটি দেখুন।



আজকের জনপ্রিয় খবরঃ

গুরুত্বপূর্ণ অ্যাপ:

  1. বুখারী শরীফ Android App: Download করে প্রতিদিন ২টি হাদিস পড়ুন।
  2. পুলিশ ও RAB এর ফোন নম্বর অ্যাপটি ডাউনলোড করে আপনার ফোনে সংগ্রহ করে রাখুন।
  3. প্রতিদিন আজকের দিনের ইতিহাস পড়ুন Android App থেকে। Download করুন

Add Comment

Click here to post a comment