খেলা-ধুলা

যে কারণে মায়ের নাম লেখা জার্সি পরে ভাইজ্যাগে উইকেটকিপিং করেননি ধোনি…

imageভারতীয় ক্রিকেটাররা পরে ছিলেন যে জার্সি, তাতে মায়েদের নাম লেখা ছিল। ব্যতিক্রম ধোনি। তাঁর জার্সিতে লেখা ছিল না মায়ের নাম। কেন?

বিশাখাপত্তনমে ভারতীয় দল অভিনবত্ব দেখিয়েছে। মায়ের নাম লেখা জার্সি পরে নির্ণায়ক ম্যাচটি খেলতে নেমেছিল ভারত। মহেন্দ্র সিংহ ধোনি, বিরাট কোহলি, অজিঙ্কে রাহানে-সহ গোটা দলই মায়ের নাম লেখা জার্সি পরে নেমেছিলেন বিশাখাপত্তনমে।

ঘটনা হল, ‘স্টার ইন্ডিয়া’-র নতুন উদ্যোগ ছিল। প্রত্যেকের জীবনে মায়ের ভূমিকা কতখানি, তা বোঝাতেই তাঁদের এই অভিনব উদ্যোগ ছিল।

সবাইকে মায়ের নাম লেখা জার্সি পরে খেলতে দেখা গেলেও ব্যতিক্রম ছিলেন মহেন্দ্র সিংহ ধোনি। টসের সময়ে রবি শাস্ত্রীর সঙ্গে যখন কথা বলছিলেন, তখনও ধোনির পিঠে ছিল তাঁর মায়ের নাম লেখা জার্সি। ব্যাট করতে এসেছিলেন মায়ের নাম লেখা জার্সি পরেই।

কিন্তু ফিল্ডিং করার সময়তেই অন্য ছবি। ধোনির পিঠে লেখা নেই মায়ের নাম। সেখানে জ্বলজ্বল করছিল ধোনির নিজের নামই। ব্যাপারটা তাহলে কী? সবাই তো ফিল্ডিংয়ের সময়তেও নিজেদের মায়ের নাম লেখা জার্সি পরেচিলেন। হঠাত্‍ তাহলে কী হল ধোনির? বায়োপিক ‘এমএস ধোনি: দ্য আনটোল্ড স্টোরি’ প্রকাশের পরেই বিতর্ক তৈরি হয়েছে। ছবিতে দেখানো হয়নি তাঁর দাদা নরেন্দ্র সিংহ ধোনিকে। তার জন্য ধোনির দাদা প্রচণ্ড ক্ষুব্ধ। খবর প্রকাশিত হয়েছে, হাসপাতালে অস্ত্রোপচার হয়েছে ধোনির দাদার। খবর পেয়েও ধোনি কিন্তু হাসপাতালে যাননি। তবে কী সেইরকমই কিছু ঘটনা নাকি?

ক্রিকেটভক্তদের মনে নানা প্রশ্নের উদ্রেক হতেই পারে। কিন্তু না। আসল ঘটনা অন্য। ধোনি ব্যাট করার সময়ে হাফ হাতা জার্সি পরতেই পছন্দ করেন। কিন্তু ফিল্ডিংয়ের সময়ে ফুল স্লিভ জার্সি পরে খেলতেই পছন্দ করেন ধোনি। সেই কারণেই ধোনিকে ফিল্ডিং করার সময়ে ফুল স্লিভ জার্সিতে দেখা গিয়েছে। ফুল স্লিভ জার্সিতে লেখা ছিল না ধোনির মায়ের নাম। সেই জন্যই উইকেটকিপার ধোনির পিঠে ছিল না মায়ের নাম। মায়ের সঙ্গে সম্পর্ক চুকেবুকে গিয়েছে, এমন ধারণা যে সব ক্রিকেটপাগলরা করেছেন, তাঁদের জ্ঞাতার্থে বলতে হয়, ফিল্ডিংয়ের সময়ে তিনি যে জার্সি পরে স্বচ্ছন্দ্য বোধ করেন, সেই জার্সি পরেই উইকেটকিপিং করেন। এর মধ্যে অন্য গল্প খোঁজার কোনও প্রয়োজনই নেই।

আরও পড়ুনঃ  বরিশাল টিভি~হাসতে হাসতে পেট ব্যাথা হয়ে যাবে

Add Comment

Click here to post a comment