আন্তর্জাতিক

মার্কিন নির্বাচন কেন মঙ্গলবারে হয়?

33e68d7832cd770257d250d54172e52f-untitled-1১৮৪৫ সাল থেকে নভেম্বরের প্রথম সোমবারের পরের দিন মঙ্গলবার মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের ভোট গ্রহণ হয়ে আসছে। কিন্তু মঙ্গলবার কেন?
যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসের প্রথম ৬৯ বছর নির্বাচনের জন্য কোনো আলাদা দিন নির্দিষ্ট ছিল না। অঙ্গরাজ্যগুলো যার যার পছন্দমতো দিনে ভোট গ্রহণ করত। এর ফলে যে বিশৃঙ্খলা দেখা দিত, তা ঠেকাতে ১৮৪৫ সালে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় নভেম্বরের প্রথম মঙ্গলবার সারা দেশে একসঙ্গে ভোট গ্রহণ করা হবে। রোববার এই দিন নির্ধারণ করা হোক, এমন এক প্রস্তাব তাৎক্ষণিকভাবে বাতিল হয়। কারণ, সেদিন সবাই গির্জায় যায় সাপ্তাহিক প্রার্থনায় অংশ নিতে। সোমবারের কথাও ভাবা হয়, কিন্তু সেটাও বাতিল হয়ে যায়। কারণ, উনিশ শতকের মাঝামাঝি এক স্থান থেকে অন্য স্থানে যাতায়াতে হেঁটে বা ঘোড়ার গাড়িতে চড়ে যাওয়া ছাড়া অন্য উপায় ছিল না। দূরদূরান্তের মানুষকে পর্যাপ্ত সময় দিতে অবশেষে সিদ্ধান্ত হয় মঙ্গলবারেই ভোট গ্রহণ করা হবে।
তবে মঙ্গলবার নিয়মিত কাজের দিন হওয়ায় ইচ্ছা থাকলেও অনেকে ভোট দিতে পারেন না। যুক্তরাষ্ট্রে অধিকাংশ সময় ৫০ শতাংশ বা তার চেয়েও কম মানুষ ভোটে অংশ নেন। ২০১২ সালে রেকর্ড পরিমাণ ৫৩ দশমিক ৬ শতাংশ মানুষ ভোট দেন। পিউ রিসার্চের হিসাব অনুসারে, ওইসিডি-ভুক্ত ৩৫টি দেশের মধ্যে ভোট প্রদানে যুক্তরাষ্ট্রের স্থান ৩১তম। ইউরোপের কোনো কোনো দেশে যেমন বেলজিয়াম ও সুইডেনে, প্রায় ৯০ শতাংশ মানুষ ভোট দেন। যুক্তরাষ্ট্রে আরও বেশিসংখ্যক মানুষকে ভোটে উৎসাহিত করতে শনি বা রোববার অর্থাৎ সপ্তাহান্তে এই ভোট গ্রহণ করা হোক, এই মর্মে একটি প্রস্তাব এই মুহূর্তে কংগ্রেসের বিবেচনায় রয়েছে। তবে সে প্রশ্নে সিদ্ধান্ত গ্রহণের কোনো তাগাদা কোনো পক্ষেরই নেই।

আরও পড়ুনঃ জেনে নিন বউ কে কিভাবে সোজা করতে হয় দেখুন (ভিডিও)

 

Advertisements

Add Comment

Click here to post a comment