আন্তর্জাতিক

ব্রাজিলের সাবেক প্রেসিডেন্ট লুলার ৯ বছরের জেল

দুর্নীতির অভিযোগে দোষী সাব্যস্ত হয়ে ব্রাজিলের সাবেক প্রেসিডেন্ট লুয়িজ ইনাসিও লুলা দা সিলভার সাড়ে নয় বছরের কারাদণ্ড হয়েছে। তবে এই দণ্ডাদেশের বিরুদ্ধে তার করা আপিলের নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত তিনি মুক্ত থাকতে পারবেন বলে রায়ে বলেছে আদালত, খবর বিবিসির।

তবে অন্যায় কোনো কিছু করার কথা দৃঢ়ভাবে অস্বীকার করে বিচারের রায়কে রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত বলে দাবি করেছেন তিনি। তার বিরুদ্ধে আনা পাঁচটি অভিযোগের প্রথমটির বিচারে এ রায় দেওয়া হয়।

রাষ্ট্রীয় তেল কোম্পানি পেত্রোব্রাসের সঙ্গে জড়িত দুর্নীতির কেলেঙ্কারিতে ঘুষ হিসেবে পাওয়া একটি অ্যাপার্টমেন্ট গ্রহণ করেছেন, এমন অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করেছেন লুলা।

২০১১ সাল পর্যন্ত টানা আট বছর ধরে ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্বপালন করেছেন লুলা। আগামী বছরের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে বামপন্থি ওয়ার্কার্স পার্টির প্রার্থী হয়ে ফের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার আগ্রহ প্রকাশ করেছিলেন তিনি।

কিন্তু রাষ্ট্রীয় তেল কোম্পানির ঠিকাদারি কাজ পেতে সহায়তা করে ইঞ্জিনিয়ারিং ফার্ম ওএএস এর কাছ থেকে ঘুষ হিসেবে সমুদ্রতীরবর্তী বিলাসবহুল একটি অ্যাপার্টমন্টে গ্রহণ করার দায়ে বুধবার তাকে দোষী সাব্যস্ত করেছেন এক বিচারক।

রায় ঘোষণার পর এক বিবৃতিতে লুলার আইনজীবী তাকে নির্দোষ দাবি করে রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করবেন বলে জানিয়েছেন।