বিনোদন

ফিরছে ‘দলছুট’

1‘দলছুট’ ভক্তদের জন্য সুখবর। এখন থেকে গানের এই দল আবারও দর্শক-শ্রোতাদের সামনে নিয়মিত গান গাইবে। আগের মতো শ্রোতা-দর্শক দলছুটের গানগুলো শুনতে পাবেন। গত বুধবার রাতে মগবাজারের স্টুডিওতে বসে গণমাধ্যমকে এ খবর জানালেন দলছুটের প্রতিষ্ঠাতা সদস্য বাপ্পা মজুমদার।

১৯৯৬ সালে গড়ে ওঠে দলছুট। ২০০৭ সালের ১৯ নভেম্বর দলছুটের আরেক প্রতিষ্ঠাতা সদস্য সঞ্জীব চৌধুরী মস্তিষ্কে রক্তক্ষরণজনিত কারণে মারা যান। এরপর বছর চারেক পর্যন্ত দলটির কার্যক্রম চলে। পাঁচ বছর ধরে দলটির কার্যক্রম বন্ধ ছিল। বিভিন্ন অনুষ্ঠানে দলছুটের পরিবেশনা বন্ধ হয়ে যাওয়ার পর সমমনা মিউজিশিয়ান বন্ধুদের নিয়ে বাপ্পা মজুমদার গড়ে তোলেন ‘বাপ্পা মজুমদার অ্যান্ড ফ্রেন্ডস’ নামের একটি গানের দল। এত দিন এই দল নিয়ে দেশে ও দেশের বাইরে মঞ্চে এবং ঘরোয়া অনুষ্ঠান মাতিয়েছেন। যে ধরনের নিরীক্ষা করতে চেয়েছেন, তাতে সফল হয়েছেন বলে জানান বাপ্পা। তবে এখন থেকে বাপ্পা মজুমদারকে আবার দলছুট নিয়ে দেখা যাবে মঞ্চ ও টেলিভিশনের পর্দায়।

হঠাৎ আবার দলছুট পুনর্গঠনের ভাবনা কেন? বাপ্পা মজুমদার বলেন, ‘আজকে আমি যা হয়েছি, তার পুরোটাই দলছুটের কারণে। এই ব্যান্ড আমার অস্তিত্ব। এটা কোনোভাবেই অস্বীকার করার উপায় নেই। তাই অস্তিত্বকে নিয়ে এগিয়ে যাওয়ার ভাবনা থেকে গানের দলটি আবার নতুন করে সাজালাম।’ আর বাপ্পা মজুমদার অ্যান্ড ফ্রেন্ডস দলটিও থাকবে। বাপ্পা যোগ করেন, ‘দলছুটের বাইরে যখন অন্য কোনো শিল্পীর সঙ্গে গাইতে হয়, তখন বাপ্পা মজুমদার অ্যান্ড ফ্রেন্ডস নামেই করব। তবে আমার এখনকার পুরো চিন্তা থাকবে দলছুট ঘিরে। ২০ বছর পূর্তি উপলক্ষে নতুন কিছু উপহার থাকতে পারে।’

বাপ্পা মজুমদার অ্যান্ড ফ্রেন্ডসে এত দিন যাঁরা বাজিয়েছেন, তাঁরাই দলছুট ব্যান্ডের সদস্য। তাঁরা হলেন বাপ্পা মজুমদার (ভোকাল, গিটার ও দলনেতা), সোহেল আজিজ (কি-বোর্ড), জন শারটন (বেজ), মাসুম (গিটার), ডানো (ড্রামস) ও শাহান কবন্ধ (ম্যানেজার)।

১৯৯৭ সালে দলছুট আহ নামে প্রথম অ্যালবাম প্রকাশ করে। টেলিভিশনে এই অ্যালবামের ‘রঙ্গিলা’ গানের ভিডিও প্রচারিত হওয়ার পর দলটিকে সবাই চিনতে শুরু করে। সঞ্জীব চৌধুরী ও বাপ্পা মজুমদারের গড়া এই ব্যান্ডের পঞ্চম এবং সর্বশেষ অ্যালবামের নাম আয় আমন্ত্রণ।

ভিডিওঃ চুল কাটতে মাংস কাটার চাপাতি ও হাতুড়ি!স্যোসাল মিডিয়ায় ভাইরাল (ভিডিও)

Advertisements

Add Comment

Click here to post a comment