জাতীয়

প্রধান বিচারপতি অবশেষে বললেন, প্লিজ সরি…

ছুটিতে থাকা প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা বলেছেন, অস্ট্রেলিয়া যাচ্ছি এটা ঠিক। তবে কেন যাচ্ছি, কবে ফিরছি তা বলবো না।

ভারতের সংবাদ মাধ্যম ওয়ার্ল্ড ইজ ওয়ান নিউজকে তিনি বলেন, আমি দুঃখিত। আমি কোন উত্তর দেবো না। কোন প্রেসকে সাক্ষাতকার দেবো না। প্লিজ সরি। এটা আমার দেশের…। কারণ আমি প্রধান বিচারপতি। আমি সবার আগে বিচার বিভাগের স্বাধীনতা চাই। আমাদের বিচার বিভাগ অত্যন্ত শক্তিশালী। আমি আস্থাশীল। আমি নিশ্চিত যে, আমাদের দেশে কিছুই ঘটবে না। আমাদের সরকার গণতন্ত্র ও আইনের শাসনে সংকল্পবদ্ধ। আমি আইনের শাসনে বিশ্বাসী।

এই সংবাদ মাধ্যমটি হচ্ছে উত্তর প্রদেশস্থ জি মিডিয়া গ্রুপের একটি প্রতিষ্ঠান। তিনি বলেন, সরকারের কাছ থেকে অর্থাৎ মহামান্য প্রেসিডেন্টের কাছ থেকে যদি অনুমতি পাই তাহলে আমি অস্ট্রেলিয়া যাব।

আইনমন্ত্রী আনিসুল হকও বৃহস্পতিবার প্রধান বিচারপতির অস্ট্রেলিয়া যাওয়ার খবর নিশ্চিত করেন। আনিসুল হক বলেন, প্রধান বিচারপতি শুক্রবার বিকালে অস্ট্রেলিয়ার উদ্দেশ্যে বাংলাদেশ ত্যাগ করবেন বলে আমি জানি।

এর আগে দিনের প্রথমভাগে আইন মন্ত্রণালয় থেকে প্রধান বিচারপতির ছুটি সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়।

এদিকে সুরেন্দ্র কুমার সিনহা বৃহস্পতিবার সকাল ৬টায় বাসা থেকে বের হয়ে রাজধানীর স্বামীবাগে ইসকন মন্দিরে পূজা দিতে যান। সেখানে প্রায় এক ঘণ্টা অবস্থান করে তিনি সকাল ৭টায় বাসায় ফিরেন। দুপুর ১২টায় সুপ্রিম কোর্টের বেঞ্চ রিডার মাহবুব হোসেন এসকে সিনহার সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন। প্রায় আধ ঘণ্টা পরে তিনি বাসা থেকে বের হয়ে যান।

দুপুর ২টার দিকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের হৃদরোগ বিভাগের বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক সজলকৃষ্ণ ব্যানার্জি প্রধান বিচারপতির স্বাস্থ্য পরীক্ষা করেন। সন্ধ্যায় সুপ্রিম কোর্টের অতিরিক্ত রেজিস্ট্রার (প্রশাসন ও বিচার) সাব্বির ফয়েজ ও ৭টার দিকে সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতি ভবানি প্রসাদ সিংহ ও বিচারপতি মো. রুহুল কুদ্দুস প্রধান বিচারপতির সঙ্গে সাক্ষাৎ করতে যান।