Advertisements
খেলা-ধুলা

পাকিস্তানি পেসার হাসান আলীর সামনে রেকর্ডের হাতছানি!

চ্যাম্পিয়নস ট্রফির শুরুর আগে তেমন কোন নাম ডাক ছিল না। কিন্তু এবারের আসরে এ পর্যন্ত তার ঝুলিতেই সর্বোচ্চ উইকেট সংগ্রহের রেকর্ড। রবিবার ফাইনালে চমক সৃষ্টি করতে পারলে সম্ভাবনা রয়েছে রেকর্ড গড়ারও।

মিচেল স্টার্ক, ভুবনেশ্বর কুমার, মোহাম্মদ আমির, মুস্তাফিজদের ছাড়িয়ে সব আলো কেড়েছেন তিনি। তিনি হাসান আলি। চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির ফাইনালের আগে টুর্নামেন্টের সর্বোচ্চ উইকেটশিকারির দৌড়ে সবার ওপরে রয়েছেন এই পাকিস্তানি পেসার। হাসানের সামনে এবার সর্বোচ্চ উইকেটশিকারি হিসেবে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি শেষ করার হাতছানি।

৪ ম্যাচে ৩৮ ওভার বোলিং করে ১৭২ রান দিয়ে ১০ সর্বোচ্চ ১০ উইকেট নিয়েছেন এই পাকিস্তানি পেসার। ওভার প্রতি ৪.৫২ রান দিয়ে ১৭.২০ গড়ে উইকেটগুলো নেন হাসান।

জস হ্যাজলউড ৯ এবং লিয়াম প্লাঙ্কেট ৮ উইকেট নিয়ে শীর্ষ তিনে রয়েছেন। তবে অস্ট্রেলিয়া ও ইংল্যান্ড বাদ পড়ে যাওয়ায় এই দুজন হাসানের সঙ্গে লড়াইয়ে আসবেন না।

পাকিস্তানের আরেক পেসার জুনায়েদ খান তিন ম্যাচে নিয়েছেন ৭ উইকেট। ভারতীয় পেসার ভুবনেশ্বর নিয়েছেন ৬ উইকেট। সর্বোচ্চ উইকেটশিকারির দৌড়ে জুনায়েদ ও ভুবনেশ্বর চ্যালেঞ্জ জানাতে পারেন হাসানকে। তবে বেশ এগিয়ে থেকেই রোববার মাঠে নামবেন এই পাকিস্তানি পেসার।

চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির এক আসরে সর্বোচ্চ ১৩ উইকেট নেয়ার রেকর্ড ওয়েস্ট ইন্ডিজের পেসার জেরোমি টেলরের দখলে। ২০০৬ সালের আসরে ৭ ম্যাচে ১৩ উইকেট নেন এই ক্যারিবিয়ান পেসার। এক আসরে ১২টি করে উইকেট নিয়েছেন রবীন্দ্র জাদেজা ও পারভেজ মাহরুফ। ১১টি করে উইকেট নিয়েছেন মিচেল ম্যাকক্লেনঘান, জেমস অ্যান্ডারসন, লাসিথ মালিঙ্গা ও ওয়াইন পারনেল।

ফাইনালে ভারতের বিপক্ষে ৩ উইকেট নিতে পারলেই শীর্ষে থাকা টেলরকে স্পর্শ করতে পারবেন হাসান আলি। ইতোমধ্যেই সাঈদ আজমলকে (৮) টপকে পাকিস্তানের হয়ে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির এক আসরে সর্বোচ্চ উইকেট নেয়ার রেকর্ড গড়েছেন হাসান।

Advertisements