আন্তর্জাতিক

নারীর শরীর নিয়ে যেসব মন্তব্য ট্রাম্পের…

অনেক আলোচনা-সমালোচনার পথ পাড়ি দিয়ে গত বছর যুক্তরাষ্ট্রের নির্বাচনে জয়ী হয়ে ক্ষমতায় এসেছেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। বসেছেন হোয়াইট হাউজের সিংহাসনে। কিন্তু এরপরও সমালোচনা পেছনে ছাড়েনি তার।

গত কয়েক মাসে নিজের কথা বা চলাফেরা নানা কারণেই হয়েছেন সমালোচিত। বর্তমানে তিনি অবস্থান করছেন প্যারিসে। সেখানে ফ্রান্সের নতুন এবং তরুণ প্রেসিডেন্ট এমানুয়েল ম্যাক্রনের স্ত্রী অর্থাৎ দেশটির ফার্স্ট লেডি ব্রিজিথ তোনিয়োর সঙ্গে আলিঙ্গনের সময় আনাড়ি মন্তব্য করে আবার সমালোচনার মুখে পড়েছেন।

যুক্তরাজ্যভিত্তিক সংবাদমাধ্যম ডেইলি মেইলের প্রতিবেদন অনুযায়ী, স্থানীয় সময় বৃহস্পতিবার ব্রিজিথ তোনিয়োর সঙ্গে আলিঙ্গনের সময় ট্রাম্প তার শারীরিক গঠন নিয়ে মন্তব্য করেছেন।

ট্রাম্প ব্রিজিথ তোনিয়োকে উদ্দেশ্য করে বলেছেন, ‘আপনি জানেন, আপনার গঠনটি সুন্দর।’ তিনি আবার মন্তব্য করে বলেন, অসাধারণ।

ডেইলি মেইলের বরাতে জানা যায়, এসময় সেখানে উপস্থিত ছিলেন ম্যাক্রন।

এদিকে এ ধরনের আনাড়ি মন্তব্য এবারই প্রথম করলেন না ট্রাম্প। এর আগেও তিনি এ ধরনের মন্তব্য করে সমালোচিত হয়েছেন।

সম্প্রতি ওভাল অফিসে বসে আয়ারল্যান্ডের নব নির্বাচিত প্রধানমন্ত্রী লিও ভারাদকার এর সঙ্গে টেলিফোনে কথা বলার সময় সেখানে উপস্থিত আইরিশ এক নারী সাংবাদিককে উদ্দেশ্য করে বলেছিলেন, আপনি কোথায় থেকে এসেছেন? এইদিকে আসেন। আপনি কোথায় থেকে এসেছেন?

এসময় ট্রাম্প ওই নারী সাংবাদিকের সৌন্দর্য্যের প্রশংসা করে ফোনের অপর প্রান্তে থাকা ভারাদকারকে বলেন, তার (নারী সাংবাদিকের) মুখের হাসিটি অনেক সুন্দর। আমি বিশ্বাস করি সে তোমার সঙ্গে ভালো আচরণ করে।

মেয়ে ইভাঙ্কাকে নিয়েও এ ধরনের মন্তব্যও করেছিলেন ট্রাম্প। এক সাক্ষাতকারে ট্রাম্প বলেছিলেন, আপনি জানেন কে পৃথিবীর সবচেয়ে সুন্দর নারী? আমি তাকে তৈরিতে সাহায্য করেছি। ইভাঙ্কা। সে আমার মেয়ে ইভাঙ্কা। সে ছয় ফিট লম্বা, সে সেরা একটি শরীর পেয়েছে। সে মডেলিং করে অনেক টাকা উপার্জন করেছে।

শুধু এটিই নয়। এরও আগে অপর একটি সাক্ষাতকারে ট্রাম্প বলেছিলেন, ইভাঙ্কা যদি আমার মেয়ে না হতো তবে আমি তার সঙ্গে ডেট করতাম।

প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের আগেও নারী নিয়ে নানা মন্তব্যের কারণেও সমালোচনার শীর্ষে ছিলেন ট্রাম্প।

এসময় নারী নিয়ে ট্রাম্পের বেফাঁস কিছু মন্তব্যের ভিডিও টেপ ফাঁস হয়ে গিয়েছিল। যেখানে তাকে বলতে শোনা যায়, সুন্দর নারী দেখলেই তিনি আকৃষ্ট হন। অপেক্ষা না করে তাদের চুম্বনের চেষ্টা করেন।

এ ছাড়া টিভি উপস্থাপক বিলি বুশকে ট্রাম্প বলেছিলেন, ‘নারীদের…খপ করে ধরো। তারপর যা ইচ্ছা করো।’