অর্থনীতি-ব্যবসা জাতীয় বিভাগীয় সংবাদ

দাম ১৬ লাখ! তাও বিক্রি করেনি ‘রাজা বাবু’কে!

মানিকগঞ্জের সাটুরিয়ার সেই দেড় টনের ওজনের ষাঁড় গরু রাজা বাবুর কাঙ্খিত মূল্য না পাওয়ায় বিক্রি হয়নি। স্কুল ছাত্রী ইতি আক্তার ও তার মা পরিষ্কার বিবির আলোচিত রাজা বাবু বিক্রি না হওয়ায় হতাশ হয়ে পড়েছেন পরিবারটি। দেড় টনের ওজনের এ ষাঁড়টির মালিক খান্নু মিয়া জানান, কাঙ্খিত দাম না পাওয়াতে বিক্রি করেনি।

মানিকগঞ্জে দেড় টন ওজনের ষাঁড় গরু লালন করে তাক লাগিয়েছেন জেলার সাটুরিয়া উপজেলার দেলুয়া গ্রামের পরিষ্কার বিবি ও তার স্কুল পড়ুয়া কন্যা ইতি আক্তার। এ নিয়ে গত মাসে প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়। এ প্রতিবেদন প্রকাশিত হওয়ার পরই সারা দেশেই এ সংবাদটি ভাইরাল হয়ে যায়।

এরপর থেকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক এবং ইউটিউব ব্যাপক প্রচারের পর সারা দেশের বিভিন্ন অঞ্চল থেকে স্কুল পড়ুয়া ইতি আক্তারের ৩৯ মণ ওজনের ষাঁড়টি দেখার জন্য ভিড় করে।

সাটুরিয়া উপজেলার দিঘুলীয়া ইউনিয়নের দেলুয়া গ্রামের পরিষ্কার বিবি ও তার স্কুল পড়ুয়া কন্যা ইতি আক্তার। গরু লালন পালন করেই তাদের সংসার চলে। গেল বছর কোরবানী ঈদে ২৭ মন ওজনের একটি ষাঁড় ১০ লাখ টাকা বিক্রি করে তাক লাগিয়ে দিয়েছিলেন।