খেলা-ধুলা

জন্মদিনে মেয়েদের কাছে অপমানিত ম্যারাডোনা

1aগত শনিবার দিয়াগো ম্যারাডোনা জন্মদিন ছিল। জন্মদিনে বিরাট পার্টিরও আয়োজন করেছিলেন আর্জেন্টিনা ফুটবলের এই মহানায়ক। অনেকে এসেছিলেন সেই পার্টিতে। আবার অনেকেই আসেননি। যারা আসেননি তাদের মধ্যে ম্যারাডোনার মেয়েরাও ছিল। যদিও তাদের আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন এই ফুটবল মহা তারকা। তবুও তারা বাবার জন্মদিনের পার্টিতে আসেননি।। টিকিট পর্যন্ত পাঠিয়েছিলেন। সব কিছুর পরেও বাবার জন্মদিনে আসার প্রয়োজনীয়তা দেখাননি ম্যারাডোনার কন্যারা। যার ফলে মেয়েদের ওপর বেজায় চটেছেন ফুটবল ঈশ্বর।

সব ক্ষোভ তিনি ঢেলে দিয়েছেন ফেসবুকে। ঘরের কথা সর্বসমক্ষে প্রকাশ করে দিয়েছেন।  ফেসবুকে ফলাও করে লিখেছেন, তার মেয়েরা এখন আর বাবাকে পাত্তা দেন না। তাঁকে শ্রদ্ধা করেনা। ম্যারাডোনা লিখেছেন, ‘আমি ছ’টা প্রথম শ্রেণির টিকিট পাঠিয়েছিলাম আমার সন্তান ও নাতিদের জন্য। তাদের মধ্যে ইয়ানা ও দাইগুইটো এসেছিল। বাকি তিনটি টিকিট ছিল দালমা, জিয়ানিন্না ও বেঞ্জামিনের জন্য। যদিও আমার জন্মদিন বেশ ভালই কেটেছে।’

এরপরেই ক্ষোভ বেরিয়ে পড়ে ম্যারাডোনার। তিনি যে দালমা, জিয়ান্নিনার কাছ থেকে জন্মদিনের শুভেচ্ছাবার্তা প্রত্যাশা করেছিলেন, সেটাও লিখেছেন ফেসবুকে। ম্যারাডোনা লিখেছেন, ‘আমি দালমা, জিয়ান্নিনা ও আমার বাবু বেঞ্জামিনের কাছ থেকে হোয়াটস অ্যাপে শুভেচ্ছা আশা করেছিলাম। কিন্তু ওরা আমাকে তা জানায়নি। আমি এর জন্য দুঃখিত নই। আমি অসন্তুষ্ট হয়েছি। নিজের বাবা বা দাদুর সঙ্গে কেউ এমন আচরণ করে না। জিয়ান্নিনা আমার কল ব্লক করে দিয়েছে। দালমার সঙ্গে আমার সমস্যা রয়েছে’।

ম্যারাডোনা যখন খেলতেন তখন এই মেয়েরাই ছিলেন তার নয়নের মনি। বাবা ও মেয়ের সম্পর্ক এখন অন্য জায়গা গিয়ে পৌঁছেছে। ম্যারাডোনা অভিমান করে বলছেন, ‘ফুটবল ছাড়া তুমি কিছু না। এটাই প্রমাণ হয়ে গেল।’ মারাদোনা কিন্তু এখনও ভালবাসেন তার মেয়েদের। সেই কথা গোপন করেননি তিনি ফেসবুকে।

ভিডিওঃ এই মেয়ের সুপার ফিগারে সুপার ড্যান্স ভিডিওতে দেখুন



আজকের জনপ্রিয় খবরঃ

গুরুত্বপূর্ণ অ্যাপ:

  1. বুখারী শরীফ Android App: Download করে প্রতিদিন ২টি হাদিস পড়ুন।
  2. পুলিশ ও RAB এর ফোন নম্বর অ্যাপটি ডাউনলোড করে আপনার ফোনে সংগ্রহ করে রাখুন।
  3. প্রতিদিন আজকের দিনের ইতিহাস পড়ুন Android App থেকে। Download করুন

Add Comment

Click here to post a comment