অন্যরকম খবর আন্তর্জাতিক

যুক্তরাষ্ট্রে গাড়িচালক ভালুক

যুক্তরাষ্ট্রের কলোরাডো অঙ্গরাজ্যের ডুরাঙ্গের বাসিন্দা রন কর্নেলিয়াস খুব ভোরে সাধারণত ঘুম থেকে ওঠেন না। সেদিন ভোর পাঁচটায় ঘুম ভেঙে গেল তাঁর। দেখেন, নিজের সুবারু এসইউভি গাড়িটি পাহাড়ের নিচে পড়ে আছে। ভাবলেন, গাড়িটি চুরি করে নিয়ে যাওয়ার সময় ওখানটায় ধাক্কা লাগিয়েছে চোর। এই শব্দেই ঘুম ভেঙেছে।

আসলে তা নয়। গাড়িটা চালিয়েছে একটা কালো ভালুক।

ছোট্ট পার্বত্য এই শহরে গাড়ির ভেতরে ভালুকের আটকে পড়ার ঘটনা নতুন কিছু নয়। পুলিশ বলছে, প্রতি সপ্তাহেই দু-তিনটি ভালুক আটকা পড়ে গাড়িতে। এবারের ঘটনাটি ব্যতিক্রম। গাড়ির ভেতর আটকে পড়া এক ভালুক চালিয়েছে গাড়ি।

লা প্লাটা কাউন্টি শেরিফের মুখপাত্র ড্যান বেনডার বলেন, খাদ্যসংকটের কারণে বছরের এই সময়ে কালো ভালুক প্রায়ই লোকালয়ে চলে আসে। গাড়ির ভেতরে তারা মূলত খাবারের খোঁজে ঢোকে। এমনকি কিছু ভালুক হাতল ঘুরিয়ে গাড়ির দরজা খুলতেও পারে। তবে রনের গাড়িতে উঠে ভালুকটি গিয়ারে চাপ দিয়েছিল। তাই চলতে শুরু করে গাড়িটি। এটি একটি ডাকবাক্সে ধাক্কা মারে।

ভালুকের আক্রমণে রনের গাড়ি। ছবি: বিবিসির সৌজন্যে।

ভালুকের এমন কাণ্ডে একটুও রাগ করেননি রন। মজাই পেয়েছেন। তিনি বলেন, ‘প্রথমে আমার স্ত্রী ভেবেছিল, এটি কোনো চোরের কাণ্ড। পরে গাড়ির ভেতরের ভাঙচুর আর ভালুকের রেখে যাওয়া গন্ধেই আমরা বুঝতে পারি এটা কার কাজ।’

গাড়িটির পেছনে জানালা ভাঙা ছিল, রেডিও খুলে বের করে আনা ছিল। এ ছাড়া স্টিয়ারিং হুইলটি সম্পূর্ণরূপে টেনে ছিঁড়ে রেখেছিল ভালুকটি। আর এমন ক্ষতি করতে একজন মানুষের কয়েক ঘণ্টা সময় লেগে যাওয়ার কথা।

ভালুকের উৎপাতের জন্য সব সময় গাড়ির ভেতর থেকে খাবার সরিয়ে নিতে ও দরজা বন্ধ রাখতে পরামর্শ দেন স্থানীয় পুলিশ কর্মকর্তারা। সূত্র: বিবিসি অনলাইন



সর্বশেষ খবর