Advertisements
জাতীয় বরিশাল বিভাগীয় সংবাদ

এবার চাচা স্কুলছাত্রীকে অন্তঃসত্ত্বা করল

জেলার রাজাপুর উপজেলার পল্লীতে পঞ্চম শ্রেণির এক ছাত্রীর পাঁচ মাসের অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়ার ঘটনায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। পুলিশ অভিযুক্ত মুদি দোকানি হালিম তালুকদারকে গ্রেপ্তারে অভিযানে নেমেছে।

প্রলোভন দেখিয়ে দীর্ঘদিন ধরে ধর্ষণ করে আসা ওই মুদি দোকানি পারিবারিকভাবে চরম দরিদ্র পরিবারের ওই শিশুটির চাচা বলে নিশ্চিত করেছেন স্থানীয়রা। অন্যদিকে নির্যাতিতা শিশুটিও ঘটনার জন্য মুদি দোকানি চাচার দিকেই আঙুল তুলেছে।

নির্যাতিতা শিশুটির বড় ভাই এমাদুল হাওলাদার জানান, মাস দুয়েক আগে তার বোনের শারিরিক অবস্থার পরিবর্তন হতে দেখেন। এরপর তিনি বোনকে নিয়ে স্থানীয় চিকিৎসকের কাছে যান। চিকিৎসক জানান, তার বোনটি অন্তঃসত্ত্বা।

এমাদুল তার বোনের বিষয়টি সম্পর্কে আরো নিশ্চিত হওয়ার জন্য শুক্রবার (১৪ জুলাই) সকালে স্থানীয় ক্লিনিকে যান। সেখানে তার বোনকে পরীক্ষা নিরীক্ষা করেন চিকিৎসকরা। এরপর নিশ্চিত হতে পারেন তার বোন ৫ মাসের অন্তঃসত্ত্বা।

এরপরই নির্যাতিতার বাবা আমির হোসেন বাদী হয়ে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনের ৯ (১)/৩০ ধারায় মামলা দায়ের করেন। মামলায় একমাত্র আসামি করা হয় সাতুরিয়া এলাকার মৃত শামসের তালুকদারের ছেলে মুদি দোকানি হালিম তালুকদারকে।

ঝালকাঠি জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) এমএম মাহামুদ হাসান জানান, বৃহস্পতিবার অভিযোগটি মৌখিকভাবে জানতে পেরে পুলিশ সুপারের নির্দেশে শুক্রবার সকালে সরেজমিনে যাই। শারিরিক অবস্থা দেখে মেয়েটিকে অন্তঃসত্ত্বা বলে মনে হয়েছে। তবু মামলা রেকর্ড করে শিশুটিকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

এ ব্যাপারে রাজাপুর থানার উপ-পরির্শক (এসআই) আবুল কালাম জানান, শিশুটির বাবা বাদী হয়ে হালিম তালুকদারের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন। আসামিকে গ্রেপ্তারে চেষ্টা চলছে।

Advertisements





সর্বশেষ খবর