Default

ইউজড টি ব্যাগ ফেলে দেবেন না , কাজে লাগান এ ভাবে

qসকালে ঘুম থেকে উঠে হোক বা বিকেলের ক্লান্তি কাটাতে হোক। এক কাপ গরম চায়ের জবাব নেই। অনেকেই এখন টি ব্যাগের চা খেতেই পছন্দ করেন। তবে ব্যবহারের পর কী করেন টি ব্যাগ? এটা কিন্তু মোটেও ফেলে দেওয়ার জিনিস নয়। রূপচর্চায়, স্বাস্থ্য ধরে রাখতে, এমনকী ব্যথা উপশমেও কাজে আসে টি ব্যাগ।

জেনে নিন টি ব্যাগের আট উপকারিতা:

১। চোখ: টি ব্যাগ কিছুক্ষণ রেখে ঠান্ডা করে নিন। ঠান্ডা টি ব্যাগ চোখের উপর রাখুন। চায়ের মধ্যে থাকা ট্যানিন ত্বকে অ্যাস্ট্রিনজেন্ট হিসেবে কাজ করে। ত্বকের ফোলা ভাব কমায়। ফ্রিজে রাখা টি ব্যাগ চোখে চাপা দিয়ে রাখলে মাথা যন্ত্রণা কমাতেও সাহায্য করবে।ৱ

২। জেনিটাল হারপিস: যৌনাঙ্গে হারপিস ভাইরাসের সংক্রমণ খুবই সাধারণ একটা ঘটনা। অত্যন্ত যন্ত্রণাদায়ক এই রোগের উপশমে সাহায্য করে টি ব্যাগ। আক্রান্ত অংশে ঠান্ডা টি ব্যাগ চেপে রাখুন। চুলকুনি কমবে, ঠান্ডা অনুভূতি যন্ত্রণা অনেকটাই কমিয়ে দেবে।

৩। দাঁত: দাঁতের অসহ্য যন্ত্রণায় আরাম পেতে, মাড়ির রক্তপাত কমাতে ব্যবহার করতে পারেন টি ব্যাগ। ব্যথা বাড়তে অবশ্যই ডেনটিস্টের কাছে যেতে হবে। তবে সাময়িক যন্ত্রণা উপশমে সাহায্য করবে ঠান্ডা টি ব্যাগ।

৪। রোদে পোড়া ত্বক: সানবার্নের জ্বালা কমাতে সাহায্য করে টি ব্যাগ। গ্রিন টি ব্যাগ বিশেষ করে রোদ থেকে হওয়া ত্বকের ক্ষতি রুখতে সাহায্য করে। ঠান্ডা গ্রিন টি ব্যাগ ৩০ মিনিট পোড়া ত্বকে চেপে রাখুন। নিয়মিত করলে পোড়া ভাব কমবে, জ্বলা কমবে, ত্বকের ক্ষতিও মিটবে।

৫। র‌্যাশ ও পোকার কামড়: পোকার কামড় থেকে হওয়া ক্ষত, র‌্যাশ, চুলকুনি কমাতে সাহায্য করে টি ব্যাগ।

৬। কাটা ও ক্ষত: কাট অংশে ঠান্ডা টি ব্যাগ চেপে ধরুন। রক্তপাত বন্ধ হবে তাড়াতাড়ি।

৭। কড়া: অনেকদিন ধরে কড়ার সমস্যায় ভুগছেন? প্রতিদিন তিন থেকে চার বার ১০ মিনিট করে কড়ার উপর চেপে ধরে থাকুন। ধীরে ধীরে কমে যাবে।

৮। ফেস টোন: ত্বকে কেমিক্যাল টোনার ব্যবহার করে করে ক্লান্ত? টি ব্যাগ খুব ভাল ন্যাচরাল টোনার। ব্যবহার করে দেখতে পারেন।

ভিডিও:জীবনে অনেক নাচ দেখেছেন, কিন্তু এইরকম অদ্ভুত সুন্দর নাচ আগে কখনো দেখেননি (ভিডিও)

Advertisements

Add Comment

Click here to post a comment