রাজনীতি

আগামীকাল এরশাদের রাডার মামলায় ফের সাক্ষ্যের বিষয়ে আদেশ

cসাবেক রাষ্ট্রপতি এইচ এম এরশাদের বিরুদ্ধে রাডার কেনায় দুর্নীতির মামলায় ফের সাক্ষ্য নিতে দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) আবেদনের শুনানি শেষ হয়েছে।

আজ বুধবার শুনানি নিয়ে বিচারপতি এম. ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি জেবিএম হাসানের হাইকোর্ট বেঞ্চ আদেশের জন্য আগামীকাল বৃহস্পতিবার দিন ঠিক করেছেন।

জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান এরশাদের বিরুদ্ধে এ মামলায় তার শাসনামলে ফ্রান্সের থমসন সিএসএফ কোম্পানির অত্যাধুনিক রাডার না কিনে বেশি দামে যুক্তরাষ্ট্রের ওয়েস্টিন কোম্পানির রাডার কিনে রাষ্ট্রের ৬৪ কোটি ৪ লাখ ৪২ হাজার ৯১৮ টাকা আর্থিক ক্ষতির অভিযোগ আনা হয়।

১৯৯২ সালের ৪ মে তৎকালীন দুর্নীতি দমন ব্যুরো (বর্তমানে কমিশন) মামলাটি দায়েরের পর ১৯৯৪ সালের ২৭ অক্টোবর আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করা হয়।

১৯৯৫ সালের ১২ আগস্ট এরশাদসহ চার আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠনের পর ১৯৯৮ সাল পর্যন্ত মামলার কার্যক্রম সুপ্রিম কোর্টের আদেশে স্থগিত ছিল। সাক্ষ্যগ্রহণে কোনো বাধা না থাকলেও ২০০৯ সাল পর্যন্ত তৎকালীন দুর্নীতি দমন ব্যুরো বাদী আলী হায়দারকে আদালতে হাজির করেনি।

মামলার ১৮ বছর পর ২০১০ সালের ১৯ আগস্ট শুরু হয় বাদীর সাক্ষ্যগ্রহণ। ২০১২ সালের ১ মার্চ বাদীর সাক্ষ্য শেষ হয়।

২০১৪ সালের ১৫ মে এ মামলায় আত্মপক্ষ সমর্থনের দিন এরশাদ নিজেকে নির্দোষ দাবি করে লিখিত বক্তব্য দিয়েছিলেন। সেদিন অন্য দুই আসামি বিমান বাহিনীর সাবেক দুই শীর্ষ কর্মকর্তা মমতাজ উদ্দিন আহমেদ ও সুলতান মাহমুদও নিজেদের নির্দোষ দাবি করে বক্তব্য দিয়েছিলেন। অন্য আসামি এ কে এম মুসা শুরু থেকেই পলাতক।

দুদকের দাবি, কম গুরুত্বপূর্ণ সাক্ষীদের সাক্ষ্য নিয়ে মামলাটি যুক্তিতর্কের পর্যায়ে নিয়ে যাওয়া হয়েছিল। যে কারণে গুরুত্বপূর্ণ সাক্ষীদের ফের সাক্ষ্য নেওয়ার জন্য বিচারিক আদালতে আবেদন জানায় সংস্থাটি। বিচারিক আদালত গত ০৮ নভেম্বর আবেদনটি খারিজ করে দেওয়ায় হাইকোর্টে আবেদন জানায় দুদক।

এ আবেদনের ওপর শুনানি শেষে আদেশের জন্য বৃহস্পতিবার দিন ঠিক করেন আদালত।

Advertisements

Add Comment

Click here to post a comment