বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি স্বাস্থ্য

অর্জুনের ঔষধি গুণ

11ভেষজশাত্রে ঔষধি গাছ হিসেবে অর্জুনের ব্যবহার অগনিত। বলা হয়, বাড়িতে একটি অর্জুন গাছ থাকা আর এক জন ডাক্তার থাকা একই কথা। এর ঔষধি গুণ মানবসমাজের দৃষ্টি আকর্ষণ করেছে সুপ্রাচীন কাল থেকেই। শরীরের বল ফিরিয়ে আনা এবং রণাঙ্গনে মনকে উজ্জীবিত রাখতে অর্জুন ব্যবহারের উল্লেখ রয়েছে মহাভারত ও বেদ-সংহিতায়। তারপর যত দিন যাচ্ছে ততই অর্জুনের উপকারী দিক উদ্ভাবিত হচ্ছে।

● যাদের বুক ধড়ফড় করে অথচ উচ্চ রাক্তচাপ নেই, তাদের পক্ষে অর্জুন ছাল কাঁচা হলে ১০-১২ গ্রাম, শুকনা হলে ৫-৬ গ্রাম একটু ছেঁচে ২৫০ মিলি দুধ ও ৫০০ মি লিটার জলের সাথে মিশিয়ে জ্বাল দিয়ে আনুমানিক ১২৫ মিলি থাকতে ছেঁকে বিকেলবেলা খেলে বুক ধড়ফড়ানি কমে যায়। তবে পেটে যাতে বায়ু না থাকে সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে।

● অর্জুন ছাল বেটে খেলে হৃৎপিণ্ডের পেশি শক্তিশালী হয়, হৃৎপিণ্ডের ক্ষমতা বাড়ে। এটি রক্তের কোলেষ্টরল কমায় এবং ফলত রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে থাকে।

● বিচূর্ণ ফল মূত্রবর্ধক হিসেবে কাজ করে এবং লিভারসিরোসিসের টনিক হিসেবে ব্যবহৃত হয়।

● অর্জুনের ছালে ট্যানিন রয়েছে, এ টানিন মুখ, জিহ্বা ও মাড়ির প্রদাহের চিকিৎসায় ব্যবহার হয়। এটি মাড়ির রক্তপাত বন্ধ করে এবং শরীরে ক্ষত, খোস পাঁচড়া দেখা দিলে অর্জুনের ছাল বেটে লাগালে সেরে যায়।

● অর্জুনের ছাল হাঁপানি, আমাশয়, ঋতুস্রাবজনিত সমস্যা, ব্যথা, প্রদর ইত্যাদি চিকিৎসায়ও উপকারী।

● এটি সংকোচ ও জ্বর নিবারক হিসেবেও কাজ করে।

* এ ছাড়া অর্জুনে saponin রয়েছে, একটি যৌন উদ্দীপনা বাড়ায়। তাই চর্ম ও যৌন রোগে অর্জুন ব্যবহৃত হয়। যৌন উদ্দীপনা বাড়াতেও অর্জুনের ছালের রস ব্যবহার হয়।

● অর্জুনের ছালে essential oil রয়েছে। তাই অর্জুন খাদ্য হজম ক্ষমতা বাড়ায়। খাদ্যতন্ত্রের ক্রিয়া স্বাভাবিক রাখতে সাহায্য করে।

● ক্যান্সার কোষের বর্ধন রোধকারী gallic acid, ethy gallae ও lutenolin রয়েছে অর্জুন ছালে। এ কারণে এটি ক্যান্সার চিকিৎসায় ব্যবহারের সুযোগ রয়েছে।

ভিডিওঃ মহিলা হোস্টেল এসব কি নোংরামি করছে মেয়েরা! ভিডিওতে দেখুন

Advertisements

Add Comment

Click here to post a comment